Slideshows

ব্যানার
ব্যানার
ব্যানার
ব্যানার
ব্যানার
ব্যানার

পরিচালনা পরিষদ 

সম্পাদক মন্ডলীর সভাপতি

ওসমান গনি
 

প্রধান সম্পাদক

হাকিকুল ইসলাম খোকন
 

সম্পাদক

সুহাস বড়ুয়া হাসু
 

সহযোগী সম্পাদক

আয়েশা আকতার রুবী

যুক্তরাষ্ট্রে দ্যা আমেরিকান ড্রীম চলচিত্রের প্রমো উন্মোচন হলো

বৃহস্পতিবার, ০২ নভেম্বর ২০১৭

হাকিকুল ইসলাম খোকন ,বাপসনিউজ : আমাজন ডটকম বিক্রি করছে জসীম উদ্দীন-এর লেখা ইংরেজী উপন্যাস “দ্যা আমেরিকান ড্রীম” গল্প নিয়ে নির্মিত হচ্ছে ইংরেজী ভাষায় আমেরিকান মেইন ষ্ট্রীম সিনেমা। গত ৩১শে অক্টোবর মঙ্গলবার নিউইয়র্কের উডসাইডের গুলশান টেরেস(৫৯-১৫,৩৭ এভিনিউ, উডসাইড, নিউইয়র্ক,এনওয়াই-১১৩৭৭) এ “দ্যা আমেরিকান ড্রীম চলচিত্রের প্রমো উন্মোচন করলেন নিউইয়র্ক সিটি   মুভি ইন্ডাসটি প্রযোজক/পরিচালক   জন টমাস ।  সুপরিচিত গ্রন্থ প্রণেতা, প্রাবন্ধিক ও পরিচালক এবং সাবেক ছাত্রনেতা জসীমউদ্দিন এই প্রথম যুক্তরাষ্ট্রের মূলধারায় ইংরেজি ভাষায় চলচিত্র নির্মাণ করেছেন। ইংরেজি উপন্যাস “দ্যা আমেরিকান ড্রীম”র গল্প নিয়ে এই চলচিত্রে নিউইয়র্ক, হলিউড এবং মেক্্িরকোর ১০ জন অভিনেতারা  এতে অভিনয় করবেন।

বেল প্রডাকশান ও  ওয়ার্ল্ড হিউম্যান রাইটস ডেভোলাপম্যান ইউএসএ’র আয়োজনে এই প্রমো উন্মোচনে এতে বিশেষ অতিথি ছিলেন ডেভিড রতানবার্গ,র্ , মুভি ফান্ডার, অলিভিয়া এনেয়ীল, এন্টারটেইমেন্ট মার্কেটিং সিলভি ইসটোন, আমরিকান প্রেসক্লাবের অব বাংলাদেশ অরিজিন সভাপতি সিনিয়র সাংবাদিক হাকিকুল ইসলাম খোকন ,কমান্ডার মূকুল, কমিনিটি এক্টিভিষ্ট আব্দুল মান্নান ,আবুল হায়াত ,সাব্বির,মনজুর, ফারুক  ও সংগিত শিলপী তানভির শাহীন প্রমুখ।। লেখক ও পরিচালক জসীম উদ্দীন এবং ওয়াল্ড হিউম্যান ডেভেলাপমেন্ট ইঊএসএ এর সভাপতি শাহ শহীদুল হক সাঈদ উপস্থিত প্রমো উদ্ধোধন অনুষ্ঠানে সবাইকে স্বাগত ও ধন্যবাদ জানান। শেষে সবাইকে নৈশভোজে আপ্যায়ণ করা হয়।

উল্লেখ¨ প্রবাসী আমেরিকান জসীম উদ্দীনের উপন্যাস অবলম্বনে নির্মিত হচ্ছে চলচ্চিত্র ‘দি আমেরিকান ড্রিম’। চলচ্চিত্রটি পরিচালনা ও একটি  কন্ট্রোলিং চরিত্রে জসীম উদ্দীন নিজেই অভিনয় করছেন। পরিচালক জানান, ২০১৫ সালের অক্টোবর মাসে বিএফডিসিতে মহরতের মধ্য দিয়ে চলচ্চিত্রটির নির্মাণ যাত্রা শুরু হয়।†m দিন প্রধান অতিথি থেকে চলচ্চিত্রটির শুভ উদ্বোধন করেন জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের ভাইস চ্যন্সেলর ড. মিজানুর রহমান। পরিচালক বাপসনিঊজকে  বলেন, আমার লেখা উপন্যাস ‘দ্য আমেরিকান ড্রিম’ বাংলা ও ইংরেজীতে বাংলাদেশ ও আমেরিকায় প্রকাশিত হয়। উপন্যাসটি আমেরিকান পাবলিশার্স কোম্পানি এভলিকিস্ ইংরেজীতে প্রকাশ করেছে। বানস এ্যান্ড লেবেলসহ পৃথিবীর সেরা অনলাইন আমাজান বিক্রি করছে এ উপন্যাসটি। চলচ্চিত্রটির চিত্রনাট্য, সংলাপ ও গান আমারই লেখা। এটি নির্মিত হচ্ছে সারা বিশ্বে মুক্তির লক্ষ্যে প্রথমবারের মতো বাংলাদেশে ইংরেজী ভাষায় আমেরিকান ক্যাটাগরিতে চলচ্চিত্র নির্মাণ হচ্ছে। চলচ্চিত্রটির শূটিং চলছে। চলচ্চিত্রটির ঢাকা অংশের বিশ শতাংশ কাজ দ্রুত এগিয়ে চলেছে। এ বছরের জুলাই ও আগস্ট মাসে নিউইয়র্ক সিটিতে চলচ্চিত্রের বাকি চিত্রায়ন হবে। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের হাজী মুহম্মদ মহসিন হল থেকে শুরু করে প্রতিটি ফ্যাকাল্টি ও স্থাপনায় শূটিং শেষ হয়েছে।

ঢাকার আশপাশে বিশেষ করে গাজীপুরে চলচ্চিত্রটির চিত্রায়ন চলছে। নিউইয়র্ক সিটির মেয়র্স অফিসের এন্টারটেইনমেন্ট ও ফিল্ম ডিপার্টমেন্টের সহযোগিতায় ‘দি আমেরিকান ড্রিম’ চলচ্চিত্রটি হবে মেইড ইন নিউইয়র্ক লোগো সংবলিত। ইংরেজীর পাশাপাশি বাংলায়ও ডাবিং করা হবে। এতে বাংলাদেশ থেকে অভিনয় করছেন সাইমন সাদিক, আইরিন সুলতানা, সানজিদা তন্ময়, রযাম্প মডেল সূচনা আজাদ, রেহানা জলি,, শিরিন বকুল, ইরা খান, জয়া বিবি, বনি হাসান, আব্র্রাহাম, দীপক, এম সালাম, সাদেক বাচ্চুসহ আরও অনেকে। এছাড়া যুক্তরাষ্ট্রের হলিউড ও নিউইয়র্ক থেকেও অনেকে অভিনয় করবেন বলে জানা গেছে।


 
“দ্যা আমেরিকান ড্রীম” উপন্যাসটি ২০১৫ সালে অমর ২১ শে বই মেলায় প্রকাশিত হয়েছিল ঢাকার বাংলা বাজারের “আজকাল” প্রকাশনীর মাধ্যমে। সাবেক ছাত্রনেতা যুক্তরাষ্টে বসাবাস কারী জসীম উদ্দিনের লেখা তিনটি উপন্যাসের মোড়ক উন্নচিত হয়েছিল ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য ড. আ আ ম আরেফিন সিদ্দিক এর হাত দিয়ে।পরবর্তীতে সাবেক রাষ্ট্রপতি এইচএম এরশাদ ২০১৫ সালে “দ্যা আমেরিকান ড্রীম” এর দ্বিতীয় দফা মোড়ক উন্মচন করেন বনানী সাবেক রাষ্টপতির সচিবালয়ে।একই বছর মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের সুনাম ধন্য পাবলিশার্স কোম্পানী এক্সইলব্রিস্ (ঢষরনৎরং) ইংরেজিতে প্রকাশ করলো “দ্যা আমেরিকান ড্রীম”। ১লা ফেব্রুয়ারী ২০১৬ সোমবার বেলা ১২:২০ মিনিটে নিউইয়র্ক সিটির কলম্বিয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের ইন্টারন্যাশনাল এফেয়ার্স বিল্ডিং এর ভাষা রির্সোস সেন্টারে জসীম উদ্দিনের লেখা উপন্যাস “দি আমেরিকান ড্রীম” (ইংরেজী ভার্সন) মোড়ক উম্মেচন করেন ভাষা রিসোর্স সেন্টারের এসোসিয়েট্স ডিরেক্টর পিয়ারে ডি-প্রিওরজিও। উপস্থিত ছিলেন উপন্যাসের লেখক জসীম উদ্দিন, ভাষা রির্সোস সেন্টারের প্রসাশনিক কর্মকর্তা এমিশা ব্রিউয়াস্ ও সাংবাদিক হাকিকুল ইসলাম খোকন। বইটির বিক্রির দায়িত্ব নিলো পৃথিবীর সেরা অনলাইন কোম্পানী “আমাজন”। পাশাপাশি পৃথিবীর আলোচিত লাইব্রেরী “ব্রাঞ্চ এন্ড নোবেল” বিক্রি করছে। এই আলোচিত উপন্যাস “দ্যা আমেরিকান ড্রীম” উপন্যাসের গল্প নিয়ে নির্মিত হচ্ছে এই প্রথম কোন বাঙ্গালী আমেরিকানের ইংরেজী ভাষায় চলচ্চিত্র “দ্যা আমেরিকান ড্রীম”।


আমেরিকান মূলধারার চলচ্চিত্র আমেরিকান কোম্পানী বেল প্রডাকশন এর ব্যানারে নির্মানাধীন এই মুভিতে হলিউড সহ নিউইয়র্কের কয়েকজন তারকা শিল্পীর অভিনয় করার কথা চলছে। নেটিভ আমেরিকান পনেরো জন অভিনেতা ও অভিনেত্রী বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ন চরিতে অভিনয় করবেন। জসীম উদ্দিনের চিত্রনাট্য ও পরিচালনার চলচ্চিত্রটি পরিবেশরনা করবেন বিশ্ব পরিবেশনা সংস্থা সনি রেড মেক্স (Sony Red Max). জসীম উদ্দিনের লেখা এ পর্যšত ৬টি উপন্যাস প্রকাশিত হয়েছে বাংলায়। আরো ডজন খানেক পান্ডুলিপি প্রকাশের অপেক্ষায়। বহু প্রসংশিত “রুপালী ইলিশ” “প্রেমের সীমাšেত”, মুক্তিযুদ্ধ ভিত্তিক উপন্যাস “অনাথ”, শিশু কিশোর উপন্যাস “রতন, নিউইয়র্ক ভিত্তিক উপন্যাস “সবুজ $ নষ্টা নারী” প্রশংসা কুড়িয়ে এখন বাংলা সাহিত্য ভান্ডার কে সমৃদ্ধ করেছে তার লেখা, জীবন নিয়ে কথা বলা, সহজ ও প্রনোউজ্জ্বল ভাষা, পাঠক সহজে আপন করে নিয়েছে। নিজের জীবনের ও পাশের মানুষের কিছু ঘটনা তার লেখা উপন্যাসে উঠে এসেছে।

alt

এম. জসীম উদ্দিন এর পরিচিতি
এম.জসীম উদ্দিন ১৯৬৯ সালের ১৫ই জুন, কুমিল্লার শহরতলী সীমান্তবর্তী গ্রাম হরিপুরে এক সম্ভ্রান্ত মুসলিম পরিবারে জন্মগ্রহন করেন। পিতা মরহুম মাষ্টার এমএ বারী এবং মাতা কাজী রুছিয়া খাতুনের মেধাবী ও কৃতি সন্তান তিনি। তার পিতামহ ছিলেন বিশিষ্ট দানবীর মরহুম সৈয়দ আকরাম আলী। তিনি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের- লোকপ্রশাসন বিভাগ থেকে সর্বোচ্চ ডিগ্রী অর্জন করেন। শিক্ষাকালীন সময়ে তিনি ছিলেন একজন তুখোড় ছাত্র নেতা এবং বর্তমানে একজনসএিয় রাজনীতিবিদ ও রাজনৈতিক বিশ্লেষক। ১৯৯০ এর পর থেকে তিনি স্থায়ী ভাবে যুক্তরাষ্ট্রে বসবাস শুরু করেন।

শৈশব থেকেই রাজনীতির পাশাপাশি সাহিত্য ও সংস্কৃতি মনা প্রতিভাবান এই লেখক সাহিত্য চর্চায় মনোনিবেশ করেন। তার লেখা ছোটগল্প, নাটক, উপন্যাস, কবিতা এবং সমসাময়িক রাজনৈতিক বিশ্লেষন ধর্মী ফিচার দেশ ও বিদেশের বিভিনন পত্র পত্রিকায়, জার্নালে এবং ম্যাগাজিনে প্রকাশিত হওয়ায় অনেক প্রশংসা কুড়িয়েছেন তিনি। বর্তমানে তার লেখা উপন্যাস হিসেবে ডজন খানেক পান্ডুলিপি প্রকাশের অপেক্ষায় প্রস্তুত। তার লেখনিতে প্রকাশ পায়- সমাজের নিষ্পেষিত মানুষের অধীকারের কথা, দেশের কথা, চলমান রাজনীতির কথা। পৃথিবীর উল্টো প্রান্তে বসবাস করেও বাংলা সাহিত্যকে বিশ্ব সাহিত্যের দরবারে প্রতিষ্ঠার আন্দোলন চালিয়ে যাচ্ছেন তিনি। সাহিত্য চর্চা ও রাজনীতি একে অপরের পরিপূরক। অর্থনীতি, সমাজনীতি, এবং রাজনীতি সবই একই সূত্রে গাঁথা। সবই মানুষের কথা বলে, মানুষের কল্যানের কথা বলে। যখন মানুষের কল্যানে, সমাজের নিপিড়িত মানুষগুলোর চিত্র পাঠকের চোখের সামনে উঠে আসবে তখনই সার্থক হবে তার লেখনি।

পাঠকের চাওয়া পাওয়া পরিপূর্ণতায় ভরিয়ে দিতে  লেখকের তিনটি ছোটগল্প “রুপালি ইলিশ” -“প্রেমের সীমান্তে” এবং “দি আমেরিকান ড্রীম”পাঠকের হৃদয় ছুঁয়ে যায়।


Add comment


Security code
Refresh