Slideshows

http://bostonbanglanews.com/index.php/components/com_gk3_photoslide/thumbs_small/images/components/com_gk3_photoslide/thumbs_big/605744Finding_Immigrant____SaKiL___0.jpg

কুইন্স ফ্যামিলি কোর্টে অভিবাসী

হাকিকুল ইসলাম খোকন/বাপ্‌স নিউজ/প্রবাসী নিউজ ঃ বষ্টনবাংলা নিউজ ঃ দ্যা ইন্টারফেইস সেন্টার অব নিউইয়র্ক ও আইনী সহায়তা সংগঠন নিউইয়র্ক এর উদ্যোগে গত ২৪ অক্টোবর বৃহস্পতিবার সকাল ৯ See details

ব্যানার
ব্যানার
ব্যানার
ব্যানার
ব্যানার
ব্যানার

পরিচালনা পরিষদ 

সম্পাদক মন্ডলীর সভাপতি

ওসমান গনি
 

প্রধান সম্পাদক

হাকিকুল ইসলাম খোকন
 

সম্পাদক

সুহাস বড়ুয়া হাসু
 

সহযোগী সম্পাদক

আয়েশা আকতার রুবী

যুক্তরাষ্ট্রের খবর

বাংলাদেশ আমেরিকান পুলিশ এসোসিয়েশনের ৩য় বার্ষিক বনভোজন অনুষ্ঠিত

সোমবার, ২৪ জুলাই ২০১৭

Picture

হাকিকুল ইসলাম খোকন ,বাপসনিউজ : গত ১৫ জুলাই শনিবার ব্যাপক উৎসাহ উদ্দীপনার আনন্দঘন পরিবেশের মধ্যদিয়ে প্রবাস জীবনের নিঃসঙ্গ নিরানন্দ কর্মজীবনকে আনন্দময়, প্রানচাঞ্চল্য ও সুখময় করে জেলার জন্য বিশে^র অন্যতম,বৃহত্তম পুলিশ ডিপার্টমেন্ট এনওয়াইপিডির বাংলাদেশী পুলিশ অফিসারদের একমাত্র সংগঠন বাংলাদেশ-আমেরিকান পুলিশ এসোসিয়েশনের ৩য় বার্ষিক বনভোজন অনুষ্ঠিত হয়ে গেল সবুজ ছায়াঘেরা ,পাখি ডাকা, সমুদ্রতীরবর্তী নিউইয়র্কের অন্যতম নামকরা পার্ক “সানকিন মেভোজ ষ্টেট পার্কে।”খবর বাপসনিঊজ।

alt
সংগঠনের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি সার্জেন্ট সুমন সাঈদ, বর্তমান সভাপতি লুটানেন্ট সামসুল হক ও সাধারন সম্পাদক হুমায়ুন কবিরের পরিচালনায় বনভোজনের শুভ সূচনা করা হয়।সকাল ১০টা থেকে পুলিশ অফিসার ও তাদের পরিবারবর্গ বনভোজনে অংশগ্রহণ করতে শুরু করে। বনভোজনটিতে ৩০০ লোকের উপস্থিতি লক্ষ্য করা যায়।বনভোজনটি কয়েকটি পর্বে বিভক্ত করা হয় । প্রথম পর্বে ছিল সকালের নাস্তা ও সদস্যদের পরিচয় পর্ব। এই পর্বটি পরিচালনা করেন সভাপতি লুটানেন্ট সামসুল হক।

alt

দ্বিতীয় পর্বে ছিল পুলিশ অফিসার ও তাদের পরিবারবর্গদের ক্রীড়া প্রতিযোগিতা ও মধ্যহ্নভোজ। এই পর্বটি পরিচালনা করেন সংগঠনের মিডিয়া লিয়াজন সার্জেন্ট প্রিন্স আলম, ইভেন্ট কো- অর্ডিনেটর সার্জেন্ট এরশাদ সিদ্দিকী, ট্রেজারার সার্জেন্ট তারেকুল চৌধুরী, ডিটেক্টিভ সরোয়ার জামিল, পুলিশ অফিসার সরদার আল-মামুন, মেহেদী মামুন, শেখ হালিম , মাহফুজ চৌধুরী।

alt
৩য় পর্বে ছিল বিকালের নাস্তা ও ক্রীড়া প্রতিযোগিতার পুরস্কার বিতরন। উক্ত পর্বে ছিলেন সংগঠনের সহ-সভাপতি লুটানেন্ট সুজাত খান, সহ সাধারন সম্পাদক লুটানেন্ট মিলাদ খান, কমিউনিটি লিয়াজন সার্জেন্ট হাফিজ রহমান। অফিসার শরিফ ভূইয়ান, সার্জেন্ট মাহবুবুর খান।

alt
বনভোজনে প্রত্যেকটি বাচ্চাদের পুরস্কার দেওয়া হয় । হাতে ও মুখে আলপনা আঁকা হয়। সঙ্গীত পরিবেশন করেন পুলিশ অফিসার রহমান। সবাইকে ধন্যবাদ জ্ঞাপন করে বনভোজনের পরিসমাপ্তি ঘোষণা করেন সভাপতি লুটানেন্ট শামসুল হক।


বৃহত্তর লাকসাম ফাউন্ডেশনের বর্ণাঢ্য বনভোজন

সোমবার, ২৪ জুলাই ২০১৭

হাকিকুল ইসলাম খোকন,বাপসনিঊজ:নিউইয়র্ক: পরস্পর সম্প্রীতি আর সহমর্মিতা দিয়ে কমিউনিটিকে এগিয়ে নেওয়ার প্রতিশ্রুতির মধ্যদিয়ে সমাপ্ত হয়েছে প্রবাসের অন্যতম আঞ্চলিক সংগঠন “বৃহত্তর লাকসাম ফাউন্ডেশন ইউএসএ” এর বনভোজন। গত ৯ জুলাই নিউইয়র্কের এফডিআর পার্কে বনভোজনের আয়োজন করেন সংগঠনটি। প্রবাসে কর্মব্যস্ত জীবনে আপনজনদের নিয়ে সময় কাটানোর সহজে ফুসরত মেলেনা। সবাই নিজ নিজ ভূবনে ব্যস্ত।

Picture

এরমধ্যেই বৃহত্তর লাকসাম ফাউন্ডেশন ইউএসএ  আয়োজন করে বার্ষিক বনভোজনের। লাকসাম, নাঙ্গলকোট, মনোহরগঞ্জ, কুমিল্লা সদর দক্ষিণ উপজেলাবাসী সহ কমিউনিটির বিপুল সংখ্যক মানুষ অংশ নেয় এতে। সকাল সাড়ে ৮টায় তিনটি বাস ১টি মিনিবাস ছেড়ে যায় পার্কের উদ্দেশ্যে। এছাড়া নিউইয়র্কের পাঁচটি বরোসহ পাশের রাজ্যের বিভিন্ন স্থান থেকে প্রাইভেট গাড়ীতে অনেকে যোগ দেন বনভোজনে। মূহুর্তে প্রাকৃতিক সৌর্ন্দেয্যে লীলাভূমি এফডিআর পার্ক বৃহত্তর লাকসামবাসীর মিলনমেলায় পরিনত হয়। খবর বাপসনিঊজ:

alt
ফাউন্ডেশনের সাধারণ সম্পাদক নূরে আলমের পরিচালনায় উদ্বোধনী পর্ব শুরু হয়। শুরুতে পবিত্র কুরআন থেকে তেলাওয়াত করেন এবিএম হুমায়ন কবির। ত্রিপিটক পাঠ করেন দুলাল চন্দ্র সিংহ। এরপর সকলের উপস্থিতি বেলুন উড়ায়ে বনভোজনের উদ্বোধন করেন বাংলাদেশ সোসাইটির স্টাষ্ট্রিবোর্ড সদস্য ও বৃহত্তর কুমিল্লা সমিতির সাবেক সভাপতি এমদাদুল হক কামাল ও সংগঠনের সভাপতি ও বাংলাদেশ সোসাইটির সাংগঠনিক সম্পাদক আবুল কালাম ভূইঁয়া। এ সময়ে উপস্থিত ছিলেন বনভোজন কমিপির উপদেষ্টা আকতারুজ্জামান, প্রধান সমম্বয়কারী বাবু চিত্তরঞ্জন সিংহ, সমন্বয়কারী খোরশেদ আলম মেম্বার, প্রফেসর সাফায়েত উল্লাহ মজুমদার, বনভোজন উদযাপন কমিটির আহবায়ক আব্দুল জলিল তিতুমীর, উদযাপন কমিটির সদস্য সচিব রবিউল হাছান, সদস্য কামাল উদ্দিন, কামরুনাহার রিনা, দুলাল চন্দ্র সিংহ, মো: সামসু উদ্দিনসহ কার্যকরী কমিটির সদস্যরা। পরিচালনায় সহযোগিতা করেন সহ মশিউর রহমান মজুমদার, ওমর ফারুক রিপন ও পলি শাহিনা ।

alt
উদ্বোধনের পর শুরু হয় বিভিন্ন ইভেন্টে খেলাধুলা, সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান আর আড্ডা। মহিলাদের বালিশ খেলা আর এ প্রজন্মের শিশু-কিশোরদের দৌড় প্রতিযোগিতা ছিল আনন্দদায়ক। পার্কের লেকের পাড়ে মনোরম পরিবেশে বৃহত্তর লাকসামবাসীর কোলাহল আর আড্ডা প্রবাসী বৃহত্তর লাকসাসবাসীর মধ্যে ঐক্য,  ভ্রাতৃত্ববোধ, সম্প্রীতি সৃষ্টি এক বিরল দৃষ্টান্ত সৃষ্টি হয়।

alt
বনভোজনে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন লাকসামের সন্তান বিশিষ্ট চিকিৎসক ও রাজনীতিবিদ ডা: মজিবুর রহমান মজুমদার। বিশেষ অতিথি ছিলেন বাংলাদেশ সোসাইটির সভাপতি কামাল আহমেদ, বাংলাদেশ পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তরের সাবেক পরিচালক  রফিকুজ্জামান, বিশিষ্ট চিকিৎসক ডা: খোরশেদ আলম মজুমদার, বাংলাদেশ সোসাইটির সিনিয়র সহ সভাপতি আব্দুর রহিম হাওলাদার, সহ সভাপতি আব্দুল খালেক খায়ের, অর্থ সম্পাদক মোহাম্মদ আলী, স্কুল ও শিক্ষা সম্পাদক আহসান হাবিব, কার্যকরী সদস্য সাদী মিন্টু, বৃহত্তর কুমিল্লা সমিতির সাবেক সভাপতি হাজী আব্দুল মতিন, সাবেক সভাপতি ও বাংলাদেশ সোসাইটির কার্যকরী সদস্য আজাদ বাকের, বাংলাদেশ সোসাইটির সাবেক কার্যকরী সদস্য সিরাজুল হক জামাল, কুমিল্লা জিলা সমিতি সাবেক সভাপতি ও বর্তমান প্রধান উপদেষ্টা মনির হোসেন, বিশিষ্ট রিয়েলেটর মঈনুল ইসলাম, নিউকার্ক ফ্রেন্ডস এন্ড ফ্যামিলির সভাপতি আব্দুল মান্নান, সিনিয়র সহ সভাপতি মনির হোসেন, সাধারণ সম্পাদক দুলাল মিয়া, সোনাগাজী সমিতির সাবেক সভাপতি আব্দুল হাদী, মালিক চেয়ারম্যান, বিশিষ্ট ব্যবসায়ী বদিউল আলম, শাহজাহান সিরাজী, কমিউনটি লিডার ম্যানাজার শাহ আলম, ইমাম উদ্দিন সেলিম, ভিক্টোরিয়া গ্রোসারী মালিক শাহ আলম, মোহাম্মদ মাসুদ, ইঞ্জিনিয়ার ফরিদ হোসেন, ইঞ্জিনিয়ার নূর আহমেদ, ক্যামিক্যাল ইঞ্জিনিয়ার মোহাম্মদ রিপনসহ আরো অনেকে। আরো উপস্থিত ছিলেন যুক্তরাষ্ট্র সফররত লাকসামের কৃতিসন্তান কাদরা মৌলভী সাহেবের ছোট ছেলে বিশিষ্ট ব্যবসায়ী হুমায়ন কবির, চট্টগ্রাম অগ্রনী বাংকের ডিজিএম ফজলুল করীম। তাদের উপস্থিতিতে বনভোজন আরো আনন্দময় হয়ে উঠে।

alt
প্রধান অতিথির বক্তব্যে ডা: মজিবুর রহমান মজুমদার বলেন, প্রবাসে বেড়ে উঠা নতুন প্রজন্ম ও মূলধারায় আমাদের কৃষ্টি-কালচারকে তুলে ধরাই এ সংগঠনের উদ্দেশ্য। বনভোজনকে ঘিরে বৃহত্তর লাকসামবাসীর মধ্যে যে প্রাণের জোয়ার সৃষ্টি হয়েছে তা ধরে রাখা আমাদের প্রয়োজন। তিনি সংগঠনের কল্যাণে সকলকে এগিয়ে আসার আহবান জানান।

alt
এরই মধ্যে সময় পুড়িয়ে আসে। পড়ন্ত বিকেল ছিল সংক্ষিপ্ত আলোচনা ও বিভিন্ন ইভেন্টে অংশগ্রহনকারীদের পুরস্কার প্রদানের পালা। বিজয়ীদের হাতে পুরস্কার তুলে দেন বনভোজনের আমন্ত্রিত অতিথিরা।

alt

রাফেল ড্রতে ১ম পুরষ্কার ছিল, নিউইয়র্ক-ঢাকা বিমান টিকেট, ২য় পুরষ্কার আইপেড (আপেল), ৩য় পুরষ্কার, ল্যাপটপ, ৪র্থ ও ৫ম পুরষ্কার ৩২ ইঞ্চি টিভি, ৬ষ্ঠ পুরষ্কার, মাইক্রোওভেন এবং ৭ম পুরষ্কার স্ট্যান ফ্যান।

alt
বনভোজনের সার্বিক সহযোগিতায় ছিলেন সাইফুল আলম শাহীন, চেয়ারম্যান আবু তাহের, মাষ্টার মীর হোসেন ভূইঁয়া, হুমায়ন কবির শাহীন, ইমরান খান, আশ্রাফুল আলম জাকির, মঞ্জুর রহমান মানিক, জামশেদ আহমেদ, আব্দুর রহমান দাউদ, গাজী শামীমুল লতিফ, মহিবুল্লাহ, নাদিয়া চৌধুরী, মোহাম্মদ মানিক, শরীফ উদ্দিন, নজির আহমেদ, এরশাদ উল্লাহ, সুষমা চন্দ্র সিংহ, আব্দুল জলিলসহ আরো অনেকে। সবশেষে সভাপতি আবুল কালাম ভূইঁয়া বৃহত্তর লাকসামবাসীর মধ্যে সেতুবন্ধন তৈরীর লক্ষ্যে ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করার আহবান জানিয়ে বনভোজনের সমাপ্তি ঘোষণা করেন।


এ্যাডভোকেট আব্দুল মতিন খসরুকে প্রেসিডিয়াম মেম্বার ও এ্যাডভোকেট শম রেজাউল করিমকে আইন বিষয়ক সম্পাদক মনোনীত করায় যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের অভিনন্দন

সোমবার, ২৪ জুলাই ২০১৭

হাকিকুল ইসলাম খোকন,বাপসনিঊজ:বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্য্যনির্বাহী কমিটিতে সাবেক আইন বিষয়ক সম্পাদক এ্যাডভোকেট আব্দুল মতিন খসরুকে প্রেসিডিয়াম মেম্বার ও  এ্যাডভোকেট শম রেজাউল করিমকে আইন বিষয়ক সম্পাদক মনোনীত করায় যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি সামছুদ্দীন আজাদ ও ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক আব্দুস সামাদ আজাদ যুক্তরাষ্ট্র প্রবাসী আওয়ামী লীগের নেতা কর্মীদের পক্ষ থেকে প্রাণঢালা অভিনন্দন ও মুজিবীয় শুভেচ্ছা জানিয়েছেন।খবর খবর বাপসনিঊজ।

Picture

দলের সভাপতি জননেত্রী শেখ হাসিনা গত ২২ ও ২৩ অক্টোবর ২০১৬ অনুষ্ঠিত আওয়ামী লীগের ২০তম জাতীয় কাউন্সিলে প্রদত্ত ক্ষমতাবলে এ্যাডভোকেট শম রেজাউল করিমকে উক্ত পদে মনোনয়ন দেন।


ওয়ার্ল্ডওয়াইড ট্রাভেল সার্ভিসের পক্ষ থেকে গ্রাহকদের দৃষ্টি আকর্ষন করে বিবৃতি

সোমবার, ২৪ জুলাই ২০১৭

হাকিকুল ইসলাম খোকন,বাপসনিঊজ: নিউইয়র্কঃ ওয়ার্ল্ডওয়াইড ট্রাভেলস সার্ভিসেস নিউইয়র্ক একটি প্রতিষ্ঠিত ও গ্রহনযোগ্য ব্যবসা প্রতিষ্ঠান। প্রবাসীদের সেবায় এই প্রতিষ্ঠান গত ২৮ বছর যাবত নিরলস ভাবে সততার সাথে কমিউিনিটির সেবা করে আসছে। এই প্রতিষ্ঠানের সুনাম সর্বজনবিধিত। নিউইয়র্ক বাংলাদেশ কমিউিনিটিতে ওয়ার্ল্ডওয়াইড ট্রাভেল একটি আদি প্রতিষ্ঠান হিসেবে সুনাম অক্ষুন্ন রাখলেও সম্প্রতি   সত্তাধিকারী নাজমুল হুদার আকৎস্মিক অসুস্থতার সুযোগে কতিপয় অশুভ শক্তির ষড়যন্ত্রে এই প্রতিষ্টান তার  মর্যাদা, সততা ও গ্রহনযোগ্যতা রক্ষা করতে পারেনি। এই অনভিপ্রেত ও কমিউিনিটির মানুষের সেবায় ও অগ্রহনযোগ্য পরিস্থিতির জন্য আমরা ওয়ার্ল্ডওয়াইড ট্রাভেলের পক্ষ থেকে ক্ষমা প্রার্থী। গ্রাহকদের নানারকম ভোগান্তির  জন্য আমরা নিজেরাই দ্বায়ী। এই অভিযোগ মাথায় পেতে নিয়েই আজ আপনাদের ও গ্রহকদের অবগতির জন্য সবিনয়ে দঃখ ও অনুতাপের সাথে জানাচ্ছি যে আমরা ওয়ার্ল্ডওয়াইড ট্রাভেল আপনাদের কাছে প্রতিজ্ঞা করতে চাই যে আপনারা যারা এই প্রতিষ্ঠান থেকে টিকেট কিনে সাময়িক বিভ্রান্ত ও ক্ষতিগ্রস্থ হয়েছেন তাদের প্রতি সম্মান রেখে আমরা গ্রাহকদের কাটা টিকেটের মূল্য ফেরত দিতে অঙ্গীকারবদ্ধ। এই বলেই আমরা আপনাদের কাছে বিনিত অনুরোধ করিছি, আপনারা আমাদের প্রতি স্দয় হয়ে আমাদেরকে সহযোগিতা করুন।
ওয়ার্ল্ডওয়াইড ট্রাভেল এর পক্ষথেকে সকল গ্রাহক ও ক্রেতাকে কেনা টিকেটের অর্থ ফেরত দেওযার জন্যই আপনাদেরকে আমাদের জ্যাকসন হাইটস অফিসে এসে টিকেটের প্রিন্ট কপি ও রশিদের কপি জমা দেওয়ার  আহ্বান জানিয়ছন ওয়ার্ল্ডওয়াইড ট্রাভেল এর নাজমুল হুদা এসব তথ্য আমাদের হাতে আসার পরেই সব কিছু বিবেচনা করে অর্থ ফেরত দেওয়ার সময়সুচি পত্র পত্রিকার মাধ্যমে জানানো হবে। জ্যাকসন হাইটস অফিস থেকে পরবর্তীতে অর্থ ফেরত নিতে পারবেন। সেই সাথে ওয়ার্ল্ডওয়াইড  ট্রাভেল বানিজ্যিক কার্যক্রম শুরু করবে । তবে অবশ্যই তার পূর্বে ক্রেতাদের অর্থ পরিশোধ করে এই ঔতিহ্যবাহী ব্যবসায়ী প্রতিষ্ঠান ব্যাবসায় ফিরবে। বিশেষভাবে উল্লেখ্যযোগ্য, ওয়াল্ডওয়াইড এই অনভিপ্রেত ঘটনার পর কমিউনিটির নেতৃবৃন্দ যে সাহায্য সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে দিয়েছিল তার জন্য আমরা কৃতজ্ঞ। পাশাপাশি কমিউিনিটির নেতৃবৃন্দ ও সাংবাদিকদের সমন্বয়ে আমরা একটি গ্রহনযোগ্য সিদ্ধান্তে পৌছাতে চাই। এই লক্ষে কমিউনিটি নেতা মোঃ কবির রতনকে দ্বায়িত্ব দিয়ে পুরা বিষয়টির একটি সুন্দর সুরাহার দিকে এগিয়ে যেতে চাই। নিউইয়র্ক প্রবাসী চাঁদপুরের মতলববাসী মোঃ কবির রতনসহ সাংবাদিকদের নিয়ে একটি নতুন প্রক্রিয়া শুরু করতে চাই। ওয়ার্ল্ডওয়াইড ট্রাভেল এর ২জন এবং কয়জন সাংবাদিকসহ মোঃ কবির রতন নতুন প্রক্রিয়ায় সাহায্য সহযোগিতা করবে।
যারা ওয়ার্ল্ডওয়াইড ট্রাভেল এর টিকেট কিনে বিরম্বনায় পরেছেন তাদেরকে সবিনয় অনুরোধ করা যাচ্ছে আগামী ৩১ জুলাই সোমবার দুপুর ১টা থেকে রাত ৮টা পর্যন্ত জ্যাকসন হাইটস ওয়ার্ল্ডওয়াইড ট্রাভেলের অফিসে এসে টিকেটের কপি ও রশিদ কপি জমা দিতে হবে। ৩১ জুলাই থেকে ৭ আগষ্ট নির্দিষ্ট সময়ে তা গ্রহন করা হবে এবং মূল্য ফেরত দেওয়ার প্রতিশ্রুতিও পাওয়া যাবে।
আপনাদের সার্ভিক সহযোতিা আমাদের একান্ত কাম্য। ওয়ার্ল্ডওয়াইডের পক্ষথেকে আপনাদের প্রতি সমবেদনা জানিয়ে  দোয়াপ্রার্থী।


নিউইয়র্কে সনাতন ধর্মম্বলম্বীদের অন্যতম ধর্মীয় উৎসব রথযাত্রা উদযাপন

সোমবার, ২৪ জুলাই ২০১৭

আব্দুল হামিদ ,বাপ্‌স নিউজ : নিউইযর্ক।।ধর্মীয় ভাব গাম্ভীর্য ও ব্যাপক উৎসাহ উদ্দীপনার মধ্যে দিয়ে বিপুল পরিমান ভক্তের উপস্থিতিতে  অনুষ্ঠিত হয়েছে সনাতন ধর্মম্বলম্বীদের অন্যতম ধর্মীয় উৎসব রথযাত্রা।২৩  জুলাই রবিবার নবমী তিথিতে জ্যাকসন হাইটসের ওম শক্তি মন্দিরের  আয়োজনে রথযাত্রা অনুষ্ঠিত হয়।

জ্যাকসন হাইটসের রোজভেল্ট এভিনিউ থেকে  রথযাত্রা শুরু হয়। এরপর শহরের উডহেভেন ব্লুবার্ড, উডসাইড এভিনিউ, হয়ে  বেশ কয়েকটি গুরত্বপূর্ণ সড়ক প্রদক্ষিন করে জ্যাকসন হাইটসের  ওম শক্তি মন্দিরে গিয়ে শেষ হয়। রথযাত্রায় ছিল সকল বয়সের পূন্যার্থীরা ।  এর আগে মন্দিরে পূজাচর্ণনা, আরতী, একনাম জপ ও যজ্ঞের আয়োজন করা হয়।

alt
রথযাত্রায় পুরোহিতের দায়িত্ব পালন করে নিরঞ্জন চক্রবর্ত্তী বলেন  জনন্নাথ এর আভিধানিক অর্থ হচ্ছে জগতের নাথ বা অধিশ্বর তিনি জগতের প্রভু। সনাতন শাস্ত্রানুষারে জগন্নাথ হলেন বিষ্ণু বা তাঁর অবতার ভগবান শ্রীকৃষ্ণ এর বিশেষ রূপ। ভালবাসা-শান্তি ও ভাতৃত্ববোধ প্রতিষ্ঠায় ভগবান শ্রীকৃষ্ণ তাঁর দাদা বলরাম ও বোন সুভদ্রাকে সঙ্গে নিয়ে মাসির বাড়ি বেড়াতে গিয়েছিলেন এবং নবমী তিথিতে নিজ গৃহে ফিরে আসেন। জগন্নাথদেবের অনুগ্রহ পেলে মানুষের মুক্তিলাভ হয় বলে ভক্তদের বিশ্বাস। তাই মুক্তিকামী সনাতন ধর্মাবলম্বী মানুষ তাঁর কৃপা প্রার্থনা করে রথযাত্রার অনুষ্ঠান পালন করে আসছেন। রথযাত্রার পরিচালনায় ছিলেন গৌরাঙ্গ রায়, অসীম দে শংকর,স্বপন কুন্ডু, স্বরূপ সাহা প্রমুখ ।


“আটাব” এর সদস্যপদ গ্রহনের আহ্বান

সোমবার, ২৪ জুলাই ২০১৭

হাকিকুল ইসলাম খোকন,বাপসনিঊজ:ট্রাভেল ব্যবসায়ীদের নব গঠিত সংগঠন আটাব আয়োজিত আহ্বায়ক কমিটির এক সভা গত ২০শে জুলাই জ্যাকসন হাইটস্থ মেঘনা ট্রাভেল অফিসে অনুষ্ঠিত হয়। উক্ত সভায় আহ্বায়ক কমিটির সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন।
উক্ত সভায় প্রত্যেকে তাদের নিজস্ব মতামত ব্যক্ত করেন এবং সংগঠনের বিভিন্ন বিষয়ের উপর আলোচনা হয়।  আটার এর সদস্য সংগ্রহের বিষয়ে আলোচনা সভায় সবচেয়ে বেশী গুরুত্ব পাই। সভায় ট্রাভেল এজেন্ট ব্যবসায় যারা জড়িত তাদের প্রত্যেককে অনতিবিলম্বে আটাব এর সদস্য পদ গ্রহণ করার জন্য অনুরোধ জানানো হয়। ইতিমধ্যেই আটার এর রেজিষ্ট্রেশন সম্পন্ন হয়েছে। ব্যবসায়ী এবং গ্রাহকদের স্বার্থ সংশ্লিষ্ট বিষয়ে সব সময় এই সংগঠন কাজ করে যাবে।খবর বাপসনিঊজ।
যারা আটাব এর সদস্য পদ গ্রহণে আগ্রহী তারা নি¤œলিখিত ব্যক্তিবর্গের সাথে অতি সত্বর যোগাযোগ করার জন্য অনুরোধ জানানো হয়ঃ (১) কামরুজ্জামান বাচ্চু (জননী ট্রাভেল-৩৪৭-৪৬৫-৩২০০), (২) মোহাম্মদ বেলাল হোসেন, (ডিজিটাল ট্রাভেল-৯১৭-২০৯-৮১৯১), (৩) মোহাং আব্দুল খালেক (সাফওয়ান ট্রাভেল-৭১৮-৩০০-৭৪২৯), (৪) আবুল কালাম আজাদ (মা ট্রাভেল-৯১৭-৪৭৮-৬১৩১),  (৫) মোতাহার হোসেন (আল মদিনা ট্রাভেল-৩৪৭-৯২২-৪১৯৬)।


ফ্লোরিডায় ফোবানা সম্মেলনকে সফল করতে কমিউনিটিতে ‘চল চল ফ্লোরিডা চল’ শ্লোগানের ঢেউ

রবিবার, ২৩ জুলাই ২০১৭

হাকিকুল ইসলাম খোকন: বাপ্ নিউজ :উত্তর আমেরিকায় বসবাসরত বাংলাদেশিদের সবচেয়ে বড়ো সংগঠন ফেডারেশন অফ বাংলাদেশি অ্যাসোসিয়েশন্স ইন নর্থ আমেরিকা (ফোবানা) সম্মেলনকে সফল করতে আয়োজক ‘বাংলাদেশ অ্যাসোসিয়েশন অব ফ্লোরিডা’র সংগঠকরা জনসংযোগ শুরু করেছেন। ৩১তম ফোবানা সফল করতে হোস্ট কমিটি নেতৃবৃন্দের আগমনে এবং জনসংগোর কারণে ‘চল চল ফ্লোরিডা ফোবানায় চল’ শ্লোগানের ঢেউ উঠতে শুরু করেছে ওয়াশিংটন, নিউইয়র্কসহ অত্র অঞ্চলের আশরাফ জানান, আসন্ন ফোবানায় অংশগ্রহণের জন্য সকল পর্যায়ের বুদ্ধিজীবী, শিল্পী, কলাকুশলীদের সাথে যোগাযোগ এবং কনট্রাক্ট প্রায় সম্পন্ন হয়েছে। 

তাঁরা জানান, এবারের ফোবানায় দেশবরেণ্য শিল্পী, বুদ্ধিজীবী, উত্তর আমেরিকার বিভিন্ন সংগঠন অংশগ্রহণের কথা জানিয়েছেন ইতিমধ্যে। এছাড়াও  বিভিন্ন স্টেট থেকে শত শত প্রবাসী বাংলাদেশী ফ্লোরিডা, মায়ামীর হায়াত রিজেন্স হোটেলে অনুষ্ঠিতব্য ফোবানায় আসার পরিকল্পনা করছেন বলে জানান তারা। এদিকে, ‘৩১তম বাংলাদেশ সম্মেলন’ সংগঠনটির নেতারা গত ১৮ ও ১৯ জুলাই নিউ ইয়র্ক সিটির বিভিন্ন সংস্থা ও সংগঠনের সাথে মতবিনিময় করেন।

alt

আগামী অক্টোবরের ৬ থেকে ৮ তারিখ পর্যন্ত ফ্লোরিডা রাজ্যের মায়ামি শহরের হায়াত রিজেন্সি হোটেলে তিনদিন ব্যাপী ফোবানা সম্মেলন অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে। শতাধিক সংগঠনের ১০ হাজারেরও বেশি প্রবাসীর সমাগম ঘটানোর চেষ্টা চলছে এবারের সম্মেলনে। নিউ ইয়র্কের মতবিনিময় সভায় নেতাদের মধ্যে ছিলেন ফোবানার সাবেক তিন চেয়ারম্যান আতিকুর রহমান, মীর চৌধুরী এবং নাহিদ চৌধুরী মামুন। এছাড়াও ছিলেন আয়োজক কমিটির আহ্বায়ক এম রহমান জহীর, সদস্য-সচিব আরিফ আহমেদ আশরাফ, ফোবানার শুভেচ্ছা দূত আবির আলমগীর। মতবিনিময়ে আয়োজকরা জানান, গত ৩০ বছরের ঐতিহ্যের আলোকে আসন্ন বাংলাদেশ সম্মেলনের কর্মসূচিতে প্রবাস প্রজন্মকে বিশেষ গুরুত্ব দেয়া হচ্ছে।মার্কিন রাজনীতিতে প্রভাবশালীদের আমন্ত্রণ জানানোর পাশাপাশি বাংলাদেশের রাজনীতিক, কবি, সাহিত্যিক, সাংবাদিক এবং সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্বরাও থাকবেন বিভিন্ন ফোরামে আলোচনায় যোগ দিবেন বলে জানান বাংলাদেশী কমিউনিটিতে। গত ১৮-১৯ জুলাই নিউইয়র্ক এবং ২০ জুলাই, বৃহস্পতিবার ওয়াশিংটন ডিসিতে ফোবানা হোস্ট কমিটির সিনিয়র নেতৃবৃন্দ স্থানীয় বিশিষ্ট ব্যক্তিবর্গ এবং প্রবাসী বাংলাদেশীদের সাথে ব্যাপক জনসংযোগ করেন। 

alt

ওয়াশিংটনের মতবিনিময় সভায় হোস্ট কমিটির নেতৃবৃন্দ নতুন প্রজন্মদের আকর্ষণ করার লক্ষ্যে চমক কিছু প্রোগ্রাম নিয়ে আলোচনা করেন। স্কলারশিপ, এওয়ার্ড, সায়েন্স ফেয়ার, আইটি ফেয়ার, ইসলাম বিষয়ক সেমিনারসহ আরো বেশ কিছু আকর্ষণীয় প্যাকেজ নিয়ে আলোচনা করেন এম রহমান জহির, আরিফ আহমেদ আশরাফ ও আতিকুর রহমান। উইক ডে হওয়া সত্বেও ওয়াশিংটনের উক্ত মতবিনিময় সভায় ব্যাপক জনসমাগম ঘটে।

ওয়াশিংটনের মতবিনিময় সভায় বক্তব্য রাখেন হোস্ট কমিটির সম্মানিত কনভেনর এম রহমান জহির, মেম্বার সেক্রেটারি আরিফ আহমেদ আশরাফ, চীফ কোর্ডিনেটর আতিকুর রহমান, ফোবানা এক্সিকিউটিভ কমিটির ভাইস চেয়ারম্যান আলমগীর হোসেন, গুডউইল ও প্রমোশন চেয়ারম্যান আবীর আলমগীর, কো-কালচারাল চেয়ারম্যান নাজমুন নাহার ইউনা, ইসি মেম্বার এটিএম আলম, ইসি মেম্বার নুরুল আমিন নুরু, ইসি মেম্বার জিআই রাসেল।

alt

এছাড়াও কমিউনিটি নেতৃবৃন্দের মধ্যে বক্তব্য রাখেন ড. আনোয়ারুল করিম, করিম সালাহউদ্দিন, আবু মোহাম্মদ রুমি, আক্তার হোসাইন, সৈয়দ বাহারুজ্জামান, আবুল কালাম আজাদ, তোফায়েল আহমেদ, নিজাম আহমেদ, মোহাম্মদ ইসলাম, দস্তগির জাহাঙ্গীর, দিপক বড়–য়া, ডা. আব্দুস সাত্তার, কাজী এম =রহমান, এজিএম হোসাইন, মোহাম্মদ মোস্তাফিজুর রহমান, সাদেক মোহাম্মদ খান, আনোয়ার হোসাইন, শামসুদ্দিন মাহমুদ, তালহা রহমান, ফাহমিদা আক্তার শম্পা, সুলতানা আহমেদ, মারিয়াম হোসাইন, কবির পাটোয়ারী, মোহাম্মদ মোস্তফা, রুখসানা পারভীন, পারভীন পাটোয়ারী, নেসার আহমেদ, রফিকুল ইসলাম আকাশ, মিসেস তৌহিদা সুলতানা, পাপিয়া সুলতানা, মোশাররফ হোসেইন, এলিসা গোমেজ, আতিকুর রহমান, এমডি মাহবুব আলম, নাসরিন আহমেদ, কামরুন কণা, জাহিদ চৌধুরী, ফাতেমা বিশ্বাস, বিউটি করিম প্রমুখ। অনুষ্ঠানে সঙ্গীত পরিবেশন করেন স্থানীয় শিল্পী সুকণ্ঠী মিলি গোমেজ, বাবু ও রুমি। অনুষ্ঠানে উত্তর আমেরিকা এন টিভির কর্নধার মোহাম্মদ হোসেন বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন। অনুষ্ঠানের শুরুতে পবিত্র কোরআন থেকে তেলাওয়াত করেন করিম সালাহউদ্দিন।  অনুষ্ঠান পরিচালনায় ছিলেন ইন্টারস্টেট চেয়ারম্যান শরাফত হোসেন বাবু।

‘মানবতার জন্য ঐক্য’ শ্লোগান নিয়ে ৩১তম ফোবানা সম্মেলন আগামী ৬, ৭ ও ৮ অক্টোবর মায়ামী ফ্লোরিডার হায়াত রিজেন্সী হোটেলে অনুষ্ঠিত হবে। ফোবানার শীর্ষ পর্যায়ের আয়োজকদের পক্ষ থেকে জানানো হয় যে, এবারের ফোবানা অন্যান্য বছরের ফোবানা থেকে ব্যাতিক্রম করার চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন তারা। 

ফোবানা হোস্ট কমিটির আহবায়ক এম. রহমান জহির এবং সদস্য সচিব আরিফ আহমেদ তারা।এবারের সম্মেলনে বাঙালি, বাংলাদেশ এবং প্রবাসের নানা-সমস্যার পরিপ্রেক্ষিতে বিভিন্ন সেমিনার-সিম্পোজিয়াম থাকবে। দলমত নির্বিশেষে সকল প্রবাসী যাতে সপরিবারে নির্মল আনন্দদায়ক একটি পরিবেশে ৩টি দিন অতিবাহিত করতে পারেন-সে খেয়ালও রয়েছে আয়োজকদের। জনসংযোগের ধারাবাহিকতা হিসেবে ২০-২১ জুলাই তারা ওয়াশিংটন ডিসিতে মতবিনিময় করবেন বিভিন্ন শ্রেণি ও পেশার লোকজনের সাথে।

গত বছর ফোবানার ৩০ তম বাংলাদেশ সম্মেলন হয়েছে ওয়াশিংটন ডিসিতে।


জর্জিয়া স্টেট যুবলীগের সভাপতি মোশারফ সাধারণ সম্পাদক সুহেল

রবিবার, ২৩ জুলাই ২০১৭

বাপ্ নিউজ : জর্জিয়া: হৃদয়ে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে লালন করে ২০১৯ সালের নির্বাচনে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার জন্য কাজ করে নৌকাকে বিজয়ী করে নিয়ে আসার শপথ নিয়ে সম্পন্ন হল জর্জিয়া স্টেট যুবলীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন। গত ১৬ জুলাই রবিবার সন্ধ্যা ৭টায় জর্জিয়া অঙ্গরাজ্যের আটলান্টা শহরের লাকী শোলস পার্কে অনুষ্ঠিত হয় জর্জিয়ার ইতিহাসের সর্ববৃহৎ ও জাঁকজমকপূর্ণ এই সম্মেলন।

সম্মেলনে মোশারফ হোসেন সভাপতি এবং হাসান চৌধুরী সুহেলকে সাধারন সম্পাদক কমিটি গঠণ করা হয়। কয়েক পর্বে সাজানো সম্মেলনের প্রথম পর্বে যুক্তরাষ্ট্র যুবলীগের আহবায়ক এ,কে,এম তারিকুল হায়দার চৌধুরী শান্তির পায়রা উড়িয়ে সম্মেলনের উদ্বোধন ঘোষণা করেন। জর্জিয়া স্টেট যুবলীগের আহবায়ক মোশারফ হোসেনের সভাপতিত্বে ও সদস্য সচিব সাদমান সুমনের সঞ্চালনায় সম্মেলনের দ্বিতীয় পর্বে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে বক্তব্য রাখেন যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী যুবলীগের আহবায়ক এ,কে,এম তারিকুল হায়দার চৌধুরী ও প্রধান বক্তা হিসেবে বক্তব্য রাখেন যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী যুবলীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক বাহার খন্দকার সবুজ। 

alt

সম্মেলনে অন্যান্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন যুক্তরাষ্ট্র যুবলীগের সদস্য আমিনুল হোসেন, ভার্জিনিয়া স্টেট আওয়ামী লীগের সহ সভাপতি এএফএ আনোয়ারুল আজীম, মেট্রো ওয়াশিংটন আওয়ামী লীগের আইন বিষয়ক সম্পাদক দস্তগীর জাহাঙ্গীর, বৃহত্তর ওয়াশিংটন যুবলীগের সভাপতি দেওয়ান আরশাদ আলী বিজয়, নিউইয়র্ক সিটি যুবলীগের সভাপতি খন্দকার জাহিদুল ইসলাম, মিশিগান স্টেট যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক শাহীদুর রহমান চৌধুরী জাভেদ, ফ্লোরিডা স্টেট যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক রমিজ উদ্দিন আহম্মেদ, নিউইয়র্ক সিটি যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক সুমন আহমদ, নিউইয়র্কের ম্যানহাটন বরো যুবলীগের সভাপতি শামসুল আলম খান, মেট্রো ওয়াশিংটন যুবলীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মোস্তাফিজুর রহমান, ফ্লোরিডা স্টেট যুবলীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক তানভীর আহমেদ এবং ফ্লোরিডা স্টেট যুবলীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মোঃ খোরশেদ। অনুষ্ঠানে বক্তারা বিভিন্ন স্টেট থেকে আসা নেতৃবৃন্দ গঠনমূলক বক্তব্য রাখেন।

alt

তারা যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী যুবলীগের সংগ্রামী আহবায়ক এ,কে,এম তারিকুল হায়দার চৌধুরী ও যুগ্ম আহবায়ক বাহার খন্দকার সবুজের নেতৃত্বের ভূয়সী প্রশংসা করে তাদের নেতৃত্বে যুক্তরাষ্ট্রের প্রতিটি স্টেট থেকে জননেত্রী শেখ হাসিনার হাতকে শক্তিশালী করার জন্য কাজ করার অঙ্গীকার ব্যক্ত করেন। প্রধান বক্তার বক্তব্যে বাহার খন্দকার সবুজ বলেন, বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগের চেয়ারম্যান জনাব আলহাজ্ব ওমর ফারুক চৌধুরী ও সাধারণ সম্পাদক হারুনুর রশীদের নেতৃত্বে বাংলাদেশের যুবসমাজ আজ ঐক্যবদ্ধ। তাদেরই নির্দেশে তারা যুক্তরাস্ট্রের ৫০ স্টেটে যুবলীগের কমিটি গঠনের ধারাবাহিকতায় তারা জর্জিয়াতে কমিটি গঠনে এসেছেন।

alt

সেই সাথে নবগঠিত জর্জিয়া স্টেট যুবলীগের নেতাকর্মীদের বিভিন্ন দিক নির্দেশনা দেন। প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ,কে,এম তারিকুল হায়দার চৌধুরী বলেন, যুবলীগ জাতির জনকের নিজ হাতে গড়া সংগঠন। জর্জিয়া স্টেট থেকেই আগামী ২০১৯ সালের নির্বাচনের জন্য কাজ শুরু হবে। তিনি জর্জিয়া স্টেট যুবলীগের সকল নেতাকর্মীদের এক সাথে কাধে কাধ মিলিয়ে কাজ করার আহবান জানান। সম্মেলনের তৃতীয় ও শেষ পর্বে বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগের গঠনতন্ত্র অনুযায়ী জর্জিয়া স্টেট যুবলীগের কমিটি গঠিত হয়। কমিটি গঠনের শুরুতে জর্জিয়া স্টেট যুবলীগের সদস্য সচিব সাদমান সুমনকে যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী যুবলীগের সদস্য নির্বাচিত করা হয়। এরপর বর্তমান আহবায়ক মোশারফ হোসেন কে সভাপতি, সিরাজুল ইসলাম সিজু, সাজ্জাদ হাসান পায়েল, পাপ্পু খান ও শামীম আহমেদকে সহ সভাপতি, হাসান চৌধুরী সুহেলকে সাধারন সম্পাদক, তোফায়েল আহমেদ তপুকে যুগ্ম সাধারন সম্পাদক ঘোষণা করে পূর্ণাঙ্গ কমিটি গঠন করা হয়।


গ্রিনকার্ড জব্দ করে বাংলাদেশিকে ফেরত পাঠাল আমেরিকা

রবিবার, ২৩ জুলাই ২০১৭

বাপ্ নিউজ : নিউইয়র্ক থেকে : গ্রিনকার্ড জব্দ করে তাহের আহমেদ চৌধুরী (৫৬) নামক এক বাংলাদেশিকে ফেরত পাঠিয়েছে আমেরিকার অভিবাসন দপ্তরের কর্মকর্তারা। গ্রিনকার্ডের শর্ত না মানায় এমন সিদ্ধান্ত নিয়েছে সংশ্লিষ্ট প্রশাসন।  

২০১০ সালে আমেরিকার নাগরিক বোনের সূত্রে তাহের গ্রিনকার্ড পান। প্রতি বছরই একবার করে যুক্তরাষ্ট্রে এসে ১০/১২ দিন অবস্থান করে গ্রিনকার্ড টিকিয়ে রাখতে সক্ষম হলেও ট্রাম্প প্রশাসনের কঠোর নীতির কারণে এবার তা সম্ভব হলো না।  

Picture

তাহের জানান, আমেরিকার লাসভেগাসের সিসকো লাইনের একটি অনুষ্ঠানে অংশগ্রহণের চিঠি ছিল। সে অনুযায়ী গত ২০ জুন লসএঞ্জেলেস বিমানবন্দরে নামি। সেখানে অভিবাসন অধিদফতরের কর্মকর্তারা আমার গ্রিনকার্ড ভালো করে পরখ করার পর জানান, আমি সারা বছরই বাংলাদেশে থাকি। তাই গ্রিনকার্ডের প্রয়োজন নেই। তারা আমার গ্রিনকার্ড ও বাংলাদেশি পাসপোর্ট আটক করে একটি একটি নোটিশ হাতে দেন। নোটিশ অনুযায়ী আমাকে এক বছর যুক্তরাষ্ট্রে কাটাতে হবে। এরপরই গ্রিনকার্ড ও পাসপোর্ট ফেরত দেয়া হবে। কিন্তু আমাকে দু’সপ্তাহের মধ্যেই ঢাকায় ফিরতে হবে। চাকরিতে জয়েন করা জরুরি। এর জবাবে কর্মকর্তারা আমাকে বলেন যে, ঢাকায় ফিরতে হলে গ্রিনকার্ড সারেন্ডার করতে হবে এবং এজন্যে প্রয়োজনীয় আনুষ্ঠানিকতার জন্যে অভিবাসন বিষয়ক এটর্নির সহায়তা নিতে হবে।

বাংলাদেশের সন্দ্বীপের সন্তান তাহের আহমেদ চৌধুরী তথ্য প্রযুক্তিতে মাস্টার্স করেছেন জাহাঙ্গিরনগর বিশ্ববিদ্যালয় থেকে। বাংলাদেশের একটি বেসরকারি ব্যাংকে তথ্য-প্রযুক্তি বিভাগের প্রধান হিসেবে দায়িত্ব পালন করছিলেন তিনি।


দেওয়ান আরশাদ আলী বিজয়

রবিবার, ২৩ জুলাই ২০১৭

ওয়াশিংটন ডিসি থেকে : বাংলাদেশের স্বাধীনতা ও মুক্তিযুদ্ধের মূলমন্ত্র গণতন্ত্র,শোষনমুক্ত সমাজ অর্থাৎ সামাজিক ন্যায়বিচার, জাতীয়তাবাদ, ধর্ম নিরপেক্ষতা অর্থাৎ সকল ধর্মের  মানুষের স্ব স্ব  ধর্ম স্বাধীনভাবে পালনের অধিকার তথা জাতীয় চার মুলনীতিকে সামনে রেখে বেকারত্ব দূরীকরণ, দারিদ্র দূরীকরণ, দারিদ্র বিমোচন, শিক্ষা সম্প্রসারন, গণতন্ত্রকে প্রাতিষ্ঠানিক রূপদান, অসাম্প্রদায়ীক বাংলাদেশ ও আত্মনির্ভরশীল  অর্থনীতি গড়ে তোলা এবং যুবসমাজের ন্যায্য অধিকারসমুহ প্রতিষ্ঠার লক্ষ্যে ১৯৭২ সালের ১১ ই নভেম্বর জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নির্দেশে এদেশের যুব আন্দোলনের পথিকৃৎ শহীদ শেখ ফজলুল হক মনি বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগ প্রতিষ্ঠা করেছিলেন।  
স্বাধীনতা উত্তর বাংলাদেশের প্রতিটি গণতান্ত্রিক আন্দলনে বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগের নেতা,কর্মিদের ভুমিকা ছিল অবিস্মরণীয় । ৯০ এর স্বৈরাচার সরকার পতন আন্দোলনে যুবলীগ কর্মী নূর হোসেনের রক্তে অর্জিত হয়েছিল আমাদের গণতন্ত্র।
বিগত ১/১১ এ যুবলীগের ভুমিকা ছিল অবিস্মরণীয়। তারই ধারাবাহিকতায় বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগের নেতা, কর্মীরা দেশ এবং দেশের বাহিরে এই সংগঠনকে দক্ষিন এশিয়া সহ সারা বিশ্বে সর্ববৃহৎ যুব সংগঠন করার গৌরব অর্জন করেছে।

বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগের বর্তমান চেয়াম্যান আমাদের সবার প্রিয় নেতা জনাব আলহাজ ওমর ফারুক চৌধুরী এবং সংগ্রামী সাধারন সম্পাদক জনাব হারুনুর রশিদের সাহসি নেত্রীত্বে বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগ দুর্বার গতিতে এগিয়ে চলছে ।
এই দুই মহান নেতার অত্যন্ত আস্হাভাজন ও বিশ্বস্ত বর্তমান যুক্তরাষ্ট্র যুবলীগের সংগ্রামী আহবায়ক , রাজপথের লড়াকু সৈনিক, চট্রগ্রাম জেলার কৃতি সন্তান জনাব তারিকুল হায়দার চৌধুরী ও যুক্তরাষ্ট্র যুবলীগের অহংকার,সৎ নির্ভিক, সময়ের সাহসি সন্তান তরুন যুব নেতা, যুগ্ন আহবায়ক জনাব বাহার খন্দকার সবুজ ভাইয়ের নেত্রীত্বে যুক্তরাষ্ট্র যুবলীগ
অতিতের যেকোন সময়ের চেয়ে বর্তমানে অনেক বেশি শক্তিশালী এবং ঐক্যবদ্ধ । যুক্তরাষ্ট্রের প্রায় প্রতিটি স্টেট যথা নিউ ইয়র্ক স্টেট যুবলীগ, নিউ ইয়র্ক সিটি যুবলীগ, ম্যানহাটন ব্যুরো যুবলীগ,ব্রোংক্স ব্যুরো যুবলীগ,নিউজার্সি যুবলীগ, পেনসেলভেনিয়া স্টেট যুবলীগ,বস্টন যুবলীগ,ম্যাসাসুচেস্ট যুবলীগ, বৃহত্তর ওয়াশিংটন যুবলীগ, ফ্লোরিডা স্টেট যুবলীগ, মিশিগান স্টেট যুবলীগ,জর্জিয়া স্টেট যুবলীগ, ক্যালিফোর্নিয়া যুবলীগ ইতিমধ্যেই শক্তিশালী কমিটি গঠন করেছে । টেক্সাস,সহ আরো ১০/১২ টি স্টেট কমিটি গঠন প্রক্রিয়াধিন । এসকল কমিটিগুলো প্রতিটি জাতিয় অনুষ্ঠান অত্যন্ত সফলতার সাথে উদযাপন করে থাকে । আগামি জাতিয় সংসদ নির্বাচনকে সামনে রেখে যুক্তরাষ্ট্র যুবলীগের কর্মীরা ইতিমধ্যেই ব্যপক কর্মসুচি ও পরিকল্পনা গ্রহন করেছে। যার ভিতর উল্লেখযোগ্য হলো আগামী নির্বাচনে তারিক ভাই ও সবুজ ভাইয়ের নেত্রীত্বে যুক্তরাষ্ট্র যুবলীগের প্রতিটি কর্মি প্রবাস থেকে বাংলাদেশের  যার যার এলাকায় গিয়ে সরাসরি আমাদের প্রান প্রিয় বাংলাদেশ আওয়ামীলিগ এর ঐতিহাসিক প্রতিক "নৌকা" মার্কার পক্ষে নির্বাচনে কাজ করবে। দেশ ও বিদেশের স্বাধীনতার সপক্ষের        প্রতিটি মানুষের কাছে  যুক্তরাষ্ট্র যুবলীগের নেতা, কর্মিরা আগামি জাতিয় নির্বাচনে বাংলাদেশের বর্তমান উন্নয়নের ধারাবাহিকতা,অসাম্প্রদায়িক বাংলাদেশ, ক্ষুধা ও দারিদ্রমুক্ত দেশ এবং বাংলাদেশকে মধ্যম আয়ের দেশ থেকে উচ্চ মধ্যম আয়ের দেশ করতে নৌকা মার্কায় ভোট দিয়ে বাংঙালি জাতিকে বিশ্বের দরবারে মর্যাদাপূর্ণ অবস্থানে প্রতিষ্ঠা করার জন্য সকলের প্রতি আহবান জানায় ।

জয় বাংলা


যুক্তরাষ্ট্র মিশিগান স্টেইট আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক মোহাম্মদ শাহাব উদ্দিন ভাই বাসায় ফিরেছেন

রবিবার, ২৩ জুলাই ২০১৭

বাপ্‌স নিউজ : মহান আল্লাহর মেহেরবানিতে আপনাদের সকলের দোয়ার বরকতে আজ ২১ শে জুলাই যুক্তরাষ্ট্র মিশিগান স্টেইট আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক সাবেক তুখোড় ছাত্রনেতা পরিছণ্ণ রাজনীতিবিদ আমাদের প্রাণপ্রিয় নেতা মোহাম্মদ শাহাব উদ্দিন ভাই বাসায় ফিরেছেন ৷

alt

এখন তিনি মোটামুটি সুস্থ্য আছেন ৷ উল্লেখ্য গত ৬ জুলাই তার ঘাড়ের অপারেশন করা হয় ৷ দীর্ঘ ১৭ দিন হাসপাতালে থাকাকালীন সময়ে দলীয় নেতা কর্মী ছাড়া ও বিভিন্ন সামাজিক সংগঠনের নেতূবূদ্ধ তার চিকিৎসার খোজ খবর নিয়েছেন ৷ তিনি সবার কাছে কূতজ্ঞ ৷ সবাই তার জন্য দোয়া করবেন তিনি এখনও বাসায় চিকিৎসাধীন অবস্থায় আছেন ৷