Slideshows

ব্যানার
ব্যানার
ব্যানার
ব্যানার
ব্যানার
ব্যানার

পরিচালনা পরিষদ 

সম্পাদক মন্ডলীর সভাপতি

ওসমান গনি
 

প্রধান সম্পাদক

হাকিকুল ইসলাম খোকন
 

সম্পাদক

সুহাস বড়ুয়া হাসু
 

সহযোগী সম্পাদক

আয়েশা আকতার রুবী

এবার ফ্রান্সের নির্বাচনী প্রচারণায় বাংলাদেশি টি-শার্ট

বৃহস্পতিবার, ০৪ মে ২০১৭

বাপ্ নিউজ : আগামী ৭ মে ফ্রান্সের দ্বিতীয় দফা প্রেসিডেন্ট নির্বাচন অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে। আসন্ন নির্বাচনের দিকে তাকিয়ে আছে পুরো বিশ্ব। কেন না ফ্রান্স পারমাণবিক শক্তিধর দেশ। বিশ্ববাসী সেই নির্বাচনের দিকে তাকিয়ে থাকলেও বাংলাদেশিদের আগ্রহ আরো বাড়িয়ে দেবে এই সংবাদটি।

Picture

বিশ্বায়ণের এ সময়ে বিদেশি আগ্রাসন থেকে বাঁচার জন্য ফ্রান্সের তৈরি পণ্য ব্যবহারে জন্য মেইড ইন ফ্রান্স বলে র‌্যালিতে টি-শার্ট বিক্রি করা হচ্ছে। মজার বিষয় হলো ফ্রান্সের নির্বাচনে এগিয়ে থাকা ন্যাশনাল ফ্রন্টের প্রার্থী মেরি লি পেনের নির্বাচনী র‌্যালিতে ফ্রান্সের তৈরি বলে যে টি-শার্ট বিক্রি করা হচ্ছে তা আসলে বাংলাদেশি তৈরি। টি-শার্টগুলোকে মেইড ইন ফ্রান্স বলে বিক্রি করছেন স্বয়ং লি পেন।

আরো মজার বিষয় হলো এই টি-শার্টগুলোকে ফ্রান্সের তৈরি বলে বিক্রি করা হলেও বিএফএস টিভির এক রিপোর্টারের অনুসন্ধানে এ রহস্য উদঘাটন করা হয়। অনুসন্ধান করতে গিয়ে টি-শার্টের লেবেলে লেখা তিনি মেইড ইন বাংলাদেশ দেখতে পান। যে দেশটি তৈরি পোশাক শিল্প ও সস্তা শ্রমিকের জন্য সকলের কাছে পরিচিত।

le-pen-t-shirt1

এই সম্পর্কে টিভি সাংবাদিক বিক্রেতাদের কাছে কেন বাংলাদেশি পণ্য ফ্রান্সের  তৈরি পণ্য বলে বিক্রি করা হচ্ছে জানতে চান। মেইড ইন বাংলাদেশ এই লেবেল কেন কেটে ফেলে মেইড ইন ফ্রান্স লেখা হচ্ছে এই প্রশ্নের উত্তর দিতে পারবেন না বলে জানিয়ে দিয়েছেন টি-শার্ট বিক্রেতারা।

গত বছর ন্যাশনাল ফ্রন্টের দলীয় টি-শার্ট মরক্কো থেকে আনা হয় বলে হাফিংটন মাগরিবের এক প্রতিবেদনে বলা হয়। ওই টি-শার্টগুলোকেও ফ্রান্সের তৈরি বলে প্রচার করা হয়েছিল। তবে ২০১২ সালে ফ্রান্স সোয়ার এর প্রতিবেদনে ন্যাশনাল ফ্রন্ট অফিসিয়াল অনলাইন শপে বাংলাদেশি তৈরি টি-শার্টস বিক্রি করা হচ্ছে বলেও জানানো হয়।

ব্রিটিশ গণমাধ্যশ দ্য ইন্ডেপিনডেন্টের সাংবাদিক ফ্রান্সের ন্যাশনাল ফ্রন্টের কর্মকর্তাদের সঙ্গে কথা এ বিষয়ে জানতে চাইলে কেউ এ সম্পর্কে কোনো মন্তব্য করতে রাজি হয়নি।

গত বছর মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পও বাংলাদেশি তৈরি টি-শার্ট ও ক্যাপ তার নির্বাচনী র‌্যালিতে বিক্রি করেন। ট্রাম্প বাংলাদেশি ও চীনের তৈরি টাই পরেন। এছাড়া তার অধিকাংশ পোশাক বাংলাদেশি তৈরি বলে বিভিন্ন সংবাদ মাধ্যমে প্রকাশিত হয়।