Slideshows

ব্যানার
ব্যানার
ব্যানার
ব্যানার
ব্যানার
ব্যানার

পরিচালনা পরিষদ 

সম্পাদক মন্ডলীর সভাপতি

ওসমান গনি
 

প্রধান সম্পাদক

হাকিকুল ইসলাম খোকন
 

সম্পাদক

সুহাস বড়ুয়া হাসু
 

সহযোগী সম্পাদক

আয়েশা আকতার রুবী

প্রবাসীদের খবর

কাউন্সিল অধিবেশনকে কেন্দ্র করে একটি মহল সুইডেন আওয়ামী লীগকে বিভক্ত করার চক্রান্তে লিপ্ত

বৃহস্পতিবার, ০৫ নভেম্বর ২০১৫

বাপসনিঊজ:আগামী ২১ নভেম্বর কাউন্সিল অধিশেন ও নিরপেক্ষ নির্বাচনের মাধ্যমে সুইডেন আওয়ামী লীগের একটি নতুন কার্যকরী কমিটি গঠিত হবে- সুইডেনে বসবাসরত বঙ্গবন্ধুর অগনিত সৈনিকরা এটাই প্রত্যাশা করেন। কিন্তু সুবিধাবাদী ও ক্ষমতালোভী অনুপ্রবেশকারীদের কাছে সুইডেন আওয়ামী লীগের দীর্ঘদিনের দুর্দিনের সাহসী ও খাটি আদর্শের সৈনিকরা আজ চ্যালেঞ্জের সম্মুখীন। ক্ষমতার লোভে অন্ধ হয়ে দীর্ঘদিনের চলার সাথী সুইডেন আওয়ামী লীগের বর্তমান সভাপতি গোলাম আম্বিয়া ঝন্টু দলীয় আদর্শের একনিষ্ঠ নির্ভিক খাটি কর্মিদের ফেলে আজ সুবিধাবাদীদের খপ্পরে পড়েছেন। এখন তিনি ক্ষমতাকে পাঁকাপোক্ত করার জন্য দলীয় গঠনতন্তকে আড়াল করে এবং সুইডেন আওয়ামী লীগের কার্যকরী পরিষদের একক সংখ্যাগরিষ্ঠ সদস্যদের মতামতকে উপেক্ষা করে নিজের ইচ্ছামত একতরফা ভাবে দল পরিচালনা করছেন নিজের ও সুবিদাভোগী কিছু সদস্যদের স্বার্থে। অথচ দীর্ঘদিন যারা তাকে সভাপতি বানিয়ে রেখেছিলেন- যাদের পরিশ্রমে ও প্রচেষ্টায় আয়োজিত সভা ও কর্মসূচীতে শুধু ফিতা কেটে ও ভাষন দিয়ে উনার দায়ীত্ব পালন করে এসেছেন-তাদেরই আজ দল থেকে বাদ দিতে আপকৌশলে লিপ্ত রয়েছেন। উনার এক সময়ের বিশ্বস্ত সহ সভাপতি মহিউদ্দিন আহমেদ লিটন, সাধারন সম্পাদক জাহাঙ্গীর কবির, মাসুম বারী ও সিরাজুল হক খান রানা সহ অনেক নেতাকর্মি যারা ছায়ার মত সভাপতির সাথে ছিলেন- যারা সমস্ত কাজের দায়ভার নিয়ে নিন্দিত হয়েছেন; কিন্তু সভাপতির গাঁয়ে আঁচড় লাগতেও দেন নাই- তারাই আজ তার কাছে অবাঞ্চিত।

সম্প্রতি সুইডেন আওয়ামী লীগের ৪/৫ জন নেতাকমির্র উপস্থিতিতে বিভিন্ন সহযোগি সংগঠনের নেতাকর্মিদের ২১ নভেম্বর কাউন্সিল অধিবেশনের লক্ষ্যে কাউন্সিলর নির্বাচিত করে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের দলীয় সংবিধান লঙ্ঘন করতেও দ্বিধা করেননি সুইডেন আওয়ামী লীগের এই দীর্ঘতম সভাপতি। তিনি তার ক্ষমতা ধরে রাখতে দীর্ঘদিনের পরিক্ষীত নেতাকর্মিদের ছেড়ে ফরহাদ আলী খান নামক জনৈক ক্ষমতালোভী ব্যাক্তি- যিনি হঠাৎ সুইডেন আওয়ামী লীগে যোগদান করে নতুন নতুন লোকদের নিয়ে সংগঠন গড়ে তুলেছেন,তারই খপ্পড়ে পড়েছেন এবং তাকে ঢাল হিসেবে ব্যাবহার করছেন। আওয়ামী লীগ বাংলাদেশে ক্ষমতায় না থাকলে ফরহাদ আলী খান সুইডেন আওয়ামী লীগে যোগদান করত না বলেই অনেকে বিশ্বাস করেন।

Picture

এরশাদের জাতীয় পার্টি যখন ক্ষমতায় ছিল, তখন ফরহাদ আলী খান জাতীয় পার্টির অংগ সংগঠন ছাত্র সমাজে যোগ দিয়েছিলেন বলেও অনেকেরই জানা আছে। তাছড়া এরশাদ আমলে সুইডেনে যিনি জাতীয় পার্টি গড়েছিলেন- তিনিও এখন ফরহাদ আলী খানের ডাকে সাড়া দিয়ে তার প্রতি সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে দিয়েছেন বলে জানা গেছে।স্ইুডেন আওয়ামী লীগের সহ সভাপতি মহিউদ্দিন আহমেদ লিটন- যিনি দীর্ঘদিন যাবৎ সুইডেন আওয়ামী লীগের ঐক্য ধরে রাখার প্রচেষ্টা অব্যাহত রেখেছেন, তিনিও অনেকবার সভাপতির সাথে যোগাযোগ করে সমঝোতার টেবিলে বসাতে ব্যার্থ হয়েছেন।

তবে সহ সভাপতি মহিউদ্দিন আহমেদ লিটন, সাধারন সম্পাদক জাহাঙ্গীর কবির, সহ সভাপতি সিরজিুল হক খান রানা, যুগ্ন সাধারন সম্পাদক মাসুম বারী ও যুগ্ন সাধারন সম্পাদক আতাউর রহমানসহ সুইডেন আওয়ামী লীগের কার্যকরী কমিটির অধিকাংশ সদস্যগন আগামী ২১ নভেম্বর কাউন্সিল অধিবেশনের মাধ্যমে সুইডেন আওয়ামী লীগের একটি পুর্নাঙ্গ কার্যকরী কমিটি গঠন করার প্রচেষ্টা অব্যাহত রেখেছেন। ইতিমধ্যে তারা কয়েকটি সভার আয়োজন করেছেন।

এ লক্ষ্যে হুমাউন কবিরকে প্রধান নির্বাচন কমিশনার এবং রাবেয়া ইসলাম ও লুৎফর রহমানকে সহকারী নির্বাচন কমিশনার করে একটি নির্বাচন কমিশন গঠন করা হয়েছে। তাছাড়া একটি নির্বাচন প্রস্তুতি কমিটিও গঠন করা হয়েছে।

এ সকল সভায় আরো যারা উপস্থিত ছিলেন তাদের মধ্যে রয়েছেন আবুল হোসেন, চৌধুরী আলম, রিপন আহমেদ, হুমাউন কবির, আঃ ছালাম চৌধুরী, আলী রিয়াজ, জুলফিকার হায়দার, আরিফ রহমান, আরিফ মাহবুব, নীলা চৌধরিী, সাইদুজ্জামান সিকদার খোকা, রাবেয়া ইসলাম, লায়লা আরজুমান, মান্নান মোল্লা, আমিনুল ইসলাম, মিজানুর রহমান, শেখ ইউসুফ আলী রতন, জহিরুল হক চৌধুরী, মিজানুর রশিদ, তারেক ঘোষ, গোলাম মোস্তফা সরোয়ার, রফিকুল ইসলাম নয়ন, ছরোয়ার আলম প্রমুখ।


দীপন হত্যায় কানাডায় প্রতিবাদ

বুধবার, ০৪ নভেম্বর ২০১৫

বাপসনিঊজ:কানাডা প্রতিনিধি : জাগৃতি প্রকাশনীর প্রকাশক ফয়সাল আরেফিন দীপন হত্যা এবং শুদ্ধস্বরের মালিক আহমেদুর রশীদ টুটুলসহ তিনজনকে আহত করার ঘটনার তীব্র ক্ষোভ কানাডাতেও ছড়িয়ে পড়েছে।দেশে একের পর এক ধারাবাহিকভাবে লেখক-ব্লগার-প্রকাশকদের হত্যাকাণ্ডের ঘটনায় কানাডা প্রবাসী লেখক, শিল্পী, সাহিত্যিক, সাংস্কৃতিককর্মীরা প্রতিবাদ প্রকাশ করেছে।কানাডা প্রবাসী ছড়াকার লুৎফর রহমান রিটন ইত্তেফাকের কাছে তার অনুভুতি ব্যক্ত করতে গিয়ে বলেছেন, আমরা শোকার্ত, বেদনার্ত।দীপনের বাবা অধ্যাপক আবুল কাসেম ফজলুল হক বলেছেন, তিনি পুত্র হত্যার বিচার চান না। একজন পিতা কখন এইরকম একটা কথা বলতে পারেন? এটা বুঝতে ক্ষমতাও আমাদের নেই।

Picture

এছাড়াও নিহত দীপনের বাবা আবুল কাসেম ফজলুল হক সম্পর্কে আওয়ামী লীগ নেতা মাহবুব-উল আলম হানিফের আপত্তিকর বক্তবেও অনেকেই নিন্দা জানান।


বাংলাদেশের শিক্ষা ব্যবস্থায় আমুল পরিবর্তন হয়েছে : শিক্ষামন্ত্রী

বুধবার, ০৪ নভেম্বর ২০১৫

আবু তাহির,বাপসনিঊজ: ফ্রান্স : ফ্রান্সে সফররত বাংলাদেশ সরকারের শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ বলেছেন, দেশের শিক্ষিতের হার বেড়েছে, একই সাথে শিক্ষা ব্যবস্থারও আমূল পরিবর্তন হয়েছে। এ ধারা অব্যাহত থাকবে। গতকাল সোমবার বিকেলে প্যারিসে প্যারিস-বাংলা প্রেস ক্লাবের নেতৃবৃন্দের সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাতকালে তিনি এ কথা বলেন।শিক্ষামন্ত্রী বলেন, শিক্ষা হচ্ছে আমাদের সরকার ও জাতির একটি অগ্রাধিকার খাত। তবে কিছু বিষয় থাকে, যা অগ্রাধিকারের চেয়েও বেশি অগ্রাধিকার পেয়ে থাকে। তাদের মধ্যে কারিগরি ও বৃত্তিমূলক শিক্ষা হচ্ছে অন্যতম । বাংলাদেশের শিক্ষা ব্যবস্থায় আমুল পরিবর্তন হয়েছে, বিশেষ করে নারীদের কথা অবশ্যই উল্লেখযোগ্য।

Picture

সরকারের সকল উন্নয়নমূলক কর্মকাণ্ডে প্রবাসীদের ইতিবাচক সহায়তা অত্যন্ত প্রয়োজন উল্লেখ করে তিনি বলেন, বর্তমান সরকার প্রবাসীদের সকল সমস্যা সমাধানে বদ্ধ পরিকর।শিক্ষার আধুনিকায়নে গত ছয় বছরে সরকারের বিভিন্ন পদক্ষেপের কথা তুলে ধরে নুরুল ইসলাম নাহিদ বলেন, আমাদের শিক্ষা ব্যবস্থা যুগ যুগ ধরে একটি ট্র্যাডিশনাল মাধ্যমে পরিচালিত হয়ে আসছে। রাতারাতি এ চিত্র পরিবর্তন করা সম্ভব নয়। তবে সরকার শিক্ষার আধুনিকায়নে নিরলসভাবে কাজ করে চলেছে।এ ছাড়াও আগামী ২০২১ সালের মধ্যে মধ্যম-আয়ের দেশে উন্নীত হবার স্বপ্ন বাস্তবায়নে তরুণরাই সবচেয়ে বেশি কার্যকর ভূমিকা রাখতে পারে বলে জানান শিক্ষামন্ত্রী। তিনি বলেন, বর্তমান সরকারের একটি নিশ্চিত লক্ষ্য আছে। আর এ লক্ষ্য পূরণে তরুণরাই হতে পারে সরকারের অংশীদার।এ সময় প্যারিস-বাংলা প্রেসক্লাবের সভাপতি এনটিভি ফ্রান্স প্রতিনিধি আবু তাহির,সাধারণ সম্পাদক এনায়েত হোসেন সোহেল, সাংগঠনিক সম্পাদক লুৎফুর রহমান বাবু, কোষাধ্যক্ষ ফেরদৌস করিম আখনজী, প্রচার সম্পাদক নয়ন মামুনসহ অন্যান্যরা উপস্থিত ছিলেন।


হাউজ অব কমন্সে অভিষেক ভাষণ - ৭ ব্যতিক্রমীর মধ্যে টিউলিপ সিদ্দিক

বুধবার, ০৪ নভেম্বর ২০১৫

বাপসনিঊজ:বৃটিশ পার্লামেন্টের হাউজ অব কমন্সে ব্যতিক্রমী অভিষেক ভাষণ দেয়া ৭ এমপির একটি তালিকা প্রকাশ করেছে অনলাইন বিবিসি। এর মধ্যে রয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বোন শেখ রেহানার মেয়ে টিউলিপ সিদ্দিক। তিনি হ্যাম্পস্টেড অ্যান্ড কিলবার্ন আসন থেকে লেবার দলের এমপি। ওই তালিকায় তিনি রয়েছেন ৭ নম্বরে। তালিকায় আরও রয়েছেন পাইসলে অ্যান্ড রেনফ্রেশায়ার সাউথের এমপি মাইরি ব্লাক। তিনি এসএনপি দলের এমপি। সাউথ ক্যামব্রিজশায়ার থেকে নির্বাচিত রক্ষণশীল দলের এমপি হিদি এলেন। প্লেমাউথ মুর ভিউ থেকে নির্বাচিত কনজার্ভেটিভ দলের এমপি জনি মারসার। অ্যাস্টন আন্ডার লিনি থেকে নির্বাচিত লেবার দলীয় এমপি অ্যানজেলা রেনার। ওয়েলডেনের রক্ষণশীল দলের এমপি নুসরাত গণি। ওয়েস্ট ডানবারটনশায়ারের এসএনপি দলের এমপি মারটিন ডোচেরটি। এ বিষয়ক প্রতিবেদনে এমপিদের সংক্ষিপ্ত পরিচিতি দিয়ে বলা হয়েছে- সাধারণত অভিষেক ভাষণ সংক্ষিপ্ত হয়। তা বিতর্কের সৃষ্টি করে না এবং তাতে উষ্ণ কিছু শব্দ থাকে। কিন্তু এ বছর সেই ধারার কিছুটা বাইরে গিয়েছেন কয়েকজন এমপি। এতে টিউলিপ সিদ্দিক সম্পর্কে বলা হয়েছে, ইউরোপিয়ান ইউনিয়ন রেফারেন্ডাম বিল নিয়ে বিতর্ক চলাকালে বৃটেনের শরণার্থীদের প্রতি, তাদের আশ্রয়ের বিষয়ে বৃটেন যে সাড়া দিয়েছে তা নিয়ে নিরাপত্তার বিষয় তুলে ধরেন তিনি। এ সময় তিনি তার মায়ের দুর্ভোগ প্রসঙ্গে কথা বলেন। তিনি বলেন, রাজনৈতিক শরণার্থী হিসেবে তার মাকেও বাংলাদেশ থেকে পালাতে হয়েছিল।

Picture

অন্যদিকে অ্যানজেলা রেনার হাউজ অব কমন্সে বলেন, ১৮৩ বছরেরও বেশি সময়ের মধ্যে তার আসনে তিনিই প্রথম নারী এমপি। তিনি আরও যোগ করেন, সম্ভবত হাউজ অব কমন্সে তিনিই প্রথম নারী, যিনি মাত্র ১৬ বছর বয়সে অন্তঃসত্ত্বা হয়েছিলেন। এতে হিদি এলেন তার অভিষেক বক্তব্য এড়ানোর জন্য ‘ব্লাডি হার্ড’ চেষ্টা করছিলেন। কিন্তু তিনি যখন বক্তব্য দিলেন তখন বেশ সতর্ক হতে হয়েছিল তাকে। তবে রীতি ভেঙেছেন। ট্যাক্স কর্তনের জন্য তিনি নিজের দলের সমালোচনা করেন। তবে তিনি কঠোর পরিশ্রমী বৃটিশদের প্রশংসা করেন। বলেন, তার আসনের অনেকের ‘নো ক্লোথ লেফট টু কাট’ বা তাদের কাটার মতো কোন কাপড় নেই। তার বক্তব্যের প্রশংসা করেন লেবার দলের এমপিরা, রক্ষণশীল দলের কিছু এমপি। নুসরাত গণি যে ভাষণ দেন তাতে হাউজ অব কমন্সে এমপিদের হাসির রোল পড়ে যায়। ইংলিশ ভোটস ফর ইংলিশ ল’স নিয়ে বিতর্ককালে প্রথমবার বক্তব্য রাখেন মার্টিন ডোচেরটি। এ সময় তিনি স্পিকারের নিরপেক্ষতা নিয়ে ব্যাপক হুমকির বিষয় তুলে ধরেন। এতে বলা হয়, জনি মারচার একজন সাবেক সেনা সদস্য। আফগানিস্তানে তার ব্যক্তিগত অভিজ্ঞতা তুলে ধরেন। সেখানে যুদ্ধে নিয়োজিতদের সঙ্গে আচরণ নিয়ে তিনি তার বক্তব্যের জন্য ক্ষমা চান নি।


জনাব এম এ গনি কে আমস্টারডাম এয়ারপোর্ট ফুলেল সম্বর্ধনা

সোমবার, ০২ নভেম্বর ২০১৫

বাপসনিঊজ:হেগ,হল্যান্ড -মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এর  হল্যান্ডে আগমন উপলক্ষে সর্ব ইউরোপিয়ান আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক জনাব এম এ গনি কে হল্যান্ডের  আমস্টারডাম এয়ারপোর্ট এর রিসিপ্সান জানান বিভিন্ন দেশের আওয়ামী লীগের নেতৃবৃন্দ। 

Picture

উপস্তিত ছিলেন পর্তুগাল আওয়ামী লীগের সাবেক  সভাপতি ও প্রধান উপদেষ্টা রাফিক উল্লাহ, সহসভাপতি মহসীন হাবিব ,সিনিয়র যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক মোহাম্মদ খন্দকার রফিকুল আলম বাবলু  , জিসান আকবর স্পেন আওয়ামী লীগের সভাপতি শাকিল খান পান্না , ফার্স্ট লেডি মিসেস পান্না ,মোহাম্মদ সুমন , পার্থ সারথী দাশ।  অনিক সাহা ডেনমার্ক আওয়ামী লীগের সভাপতি মোহাম্মদ আলী মোল্লা লিনকন , সাধারণ সম্পাদক ড.বিদ্যুত বড়ুয়া ,আইন বিষয়ক সম্পাদক আমির হোসেন ডেনমার্ক ছাত্রলীগ সভাপতি মোহা,ইফতেখার সম্রাট বেলজিয়াম আওয়ামী লীগের সভাপতি মোহা সহিদুল হক , বেলজিয়াম আওয়ামী যুবলীগ এর সভাপতি এম এম মোর্শেদ ,মোহাম্মদ সোহেল , জনাব সাবেক আহবায়ক জাহাঙ্গীর চৌধুরী রতন ,জনাব হিমু, এফ এ বাবুল ,-জনাব মনির  আয়ার ল্যান্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি রফিক খান , গ্রিস আওয়ামী লীগের মান্নান মাতবর সহ প্রমুখ।  উপস্থিত নেতৃবৃন্দের উদ্দেশ্যে  সর্ব ইউরোপিয়ান আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক জনাব এম এ গনি বলেন , অনেক কষ্ঠ করে দুরদুরান্ত থেকে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী বঙ্গবন্ধু কন্যা এর গন্সম্বর্ধনা অনুষ্ঠান সফল করার জন্য  আহবান জানান এবং সকল ষড়যন্ত্র কারীর বিরুদ্ধে ঐক্ক্যবদ্দ থাকার আহ্বান জানান।


হল্যান্ড এ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সম্বর্ধনা অনুষ্ঠান সফল হউক - ডেনমার্ক আওয়ামী লীগ

সোমবার, ০২ নভেম্বর ২০১৫

বাপসনিঊজ:ডেনমার্ক আওয়ামী লীগের সভাপতি মোহাম্মদ আলী মোল্লা লিঙ্কন ও সাধারণ সম্পাদক ড. বিদ্যুত বড়ুয়া এর নেতৃত্বে  ৮ সদস্যের এক প্রতিনিধিদল  হল্যান্ডে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সম্বর্ধনা অনুষ্ঠানে যোগ দিচ্ছেন।  প্রতিনিধিদলে আরো আছেন সহসভাপতি ইকবাল হোসেন মিঠু , যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক সাব্বির আহমেদ , আইন ও  অভিবাসন বিষয়ক সম্পাদক আমির হোসেন , সদস্য মোহা কামাল , ডেনমার্ক ছাত্রলীগ এর সভাপতি ইফতেখার সম্রাট।
Picture
উল্লেখ নেদারল্যান্ড এর প্রধানমন্ত্রী মার্ক রুট এর আমন্ত্রণে গনপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ৩ দিনের এক রাষ্ট্রীয় সফরে আগামী ৩ নভেম্বর ,২০১৫ মঙ্গলবার হল্যান্ড এর হেগ  শহরে পৌছবেন। দুই দেশের প্রধানমন্ত্রী  আলোচনায়  হল্যান্ড সরকারের প্রস্তাবিত "বাংলাদেশ ডেল্টা প্ল্যান ২১০০ " এর অগ্রগতি নিয়ে আলোচনা হবে। এছাড়া কৃষি , শিল্প, ব্যবসা বিনিযোগ  ,শিক্ষা ও প্রাকৃতিক দুর্যোগ মোকাবেলায় হল্যান্ড সরকারের  সহযোগিতার বিষয়ে বিভিন্ন চুক্তি হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। এছাড়া সর্বশেষ সেপ্টেম্বর এ জাতিসংঘ অধিবেশনে হল্যান্ড এর প্রধানমন্ত্রী মার্ক রুট ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার আলোচনায় আলোচিত চট্টগ্রাম বন্দর ও পটুয়াখালীর পায়রা বন্দরের অবকাঠামো উন্নয়নের বিষয়টিও প্রাধান্য পাবে।  মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর সফর সঙ্গীর মধ্যে মাননীয় পররাষ্ট্র মন্ত্রী ড. হাসান মাহমুদ আলী ও পানি সম্পদ প্রতিমন্ত্রী নজরুল ইসলাম বীরপ্রতিক রয়েছেন। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা হল্যান্ড আগমন উপলক্ষে ইতিমধ্যে ইউরোপ এর বিভিন্ন দেশের  আওয়ামী লীগ নেতৃবৃন্দ হল্যান্ডের হেগ শহরে জড়ো হয়েছেন।  সর্ব ইউরোপিয়ান আওয়ামী লীগের সভাপতি শ্রী অনিল দাশ গুপ্ত , সাধারণ সম্পাদক জনাব এম এ  গনি , নির্দেশনায় এর ইউরোপ বিভিন্ন দেশের  আওয়ামী লীগের নেতৃবৃন্দ শুভাগমন ঘটেছে।  উল্লেখ আগামী ৫ নভেম্বর, ২০১৫ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা কে হোটেল আমারত কুর হাউস এ " চ্যম্পিয়ন অব দি আর্থ " পুরস্কার প্রাপ্তিতে হল্যান্ড আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে এক গণ সম্বর্ধনা এর আয়োজন করা হয়েছে। গন্স্মবর্ধনা সফল করার লক্ষে ইতিমধ্যে ইউরোপের বিভিন্ন নিতেরিবৃন্দ যোগ দিচ্ছে।


শেখ হাসিনার আগমণ উপলক্ষে নেদারল্যান্ডে সাজ সাজ রব

সোমবার, ০২ নভেম্বর ২০১৫

বাপসনিঊজ:নেদারল্যান্ডের প্রধানমন্ত্রী মার্ক রুটের আমন্ত্রণে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ৩ দিনের এক রাষ্ট্রীয় সফরে মঙ্গলবার নেদারল্যান্ডের হেগ  শহরে পৌঁছবেন। দুই দেশের প্রধানমন্ত্রী আলোচনায় হল্যান্ড সরকারের প্রস্তাবিত "বাংলাদেশ ডেল্টা প্ল্যান ২১০০"-এর অগ্রগতি নিয়ে আলোচনা হবে। এছাড়া কৃষি, শিল্প, ব্যবসা বিনিযোগ, শিক্ষা ও প্রাকৃতিক দুর্যোগ মোকাবেলায় নেদারল্যান্ড সরকারের  সহযোগিতার বিষয়ে বিভিন্ন চুক্তি হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। এছাড়া সর্বশেষ সেপ্টেম্বরে জাতিসংঘ অধিবেশনে হল্যান্ডের প্রধানমন্ত্রী মার্ক রুট ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার আলোচনায় আলোচিত চট্টগ্রাম বন্দর ও পটুয়াখালীর পায়রা বন্দরের অবকাঠামো উন্নয়নের বিষয়টিও প্রাধান্য পাবে।  প্রধানমন্ত্রীর সফর সঙ্গীদের মধ্যে মাননীয় পররাষ্ট্র মন্ত্রী ড. হাসান মাহমুদ আলী ও পানি সম্পদ প্রতিমন্ত্রী নজরুল ইসলাম বীরপ্রতীক রয়েছেন। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেদারল্যান্ড আগমণ উপলক্ষে ইতোমধ্যে ইউরোপের বিভিন্ন দেশের আওয়ামী লীগ নেতারা নেদারল্যান্ডের হেগ শহরে জড়ো হয়েছেন। সর্ব ইউরোপিয়ান আওয়ামী লীগের সভাপতি শ্রী অনিল দাশ গুপ্ত , সাধারণ সম্পাদক এম এ গনিসহ ইউরোপের বিভিন্ন দেশের আওয়ামী লীগের নেতারা একত্রিত হয়েছে। উল্লেখ, আগামী বৃহস্পতিবার প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে হোটেল আমারত কুর হাউসে "চ্যম্পিয়ন অব দি আর্থ" পুরস্কার প্রাপ্তিতে নেদারল্যান্ড আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে এক গণসংবর্ধনার আয়োজন করা হয়েছে। 

Picture

নেদারল্যান্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি মায়ীদ ফারুক ও সাধারণ সম্পাদক মোস্তফা জামান ইতোমধ্যে সকল প্রস্তুতি সম্পন্ন করার কথা উল্লেখ করেন। সেখানে উপস্থিত থাকবেন যুক্তরাজ্য আওয়ামী লীগের সভাপতি সুলতান শরীফ, সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ সাজিদুর রহমান ফারুক, যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক আনোয়ারজ্জামান চৌধুরী, সর্ব ইউরোপিয়ান আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক শামিম হক, এম নজরুল ইসলাম, মুজিবর রহমান হাসনাত মিয়া, জার্মান আওয়ামী লীগের সভাপতি বশিরুল হক সাবু, সাধারণ সম্পাদক শেখ বাদল আহমেদ, ডেনমার্ক আওয়ামী লীগের সভাপতি মোহাম্মদ আলী মোল্লা লিংকন, সাধারণ সম্পাদক ড. বিদ্যুৎ বড়ুয়া, ফ্রান্স আওয়ামী লীগের এম নাজিম উদ্দিন, সভাপতি বেনজির আহমেদ সেলিম, সাধারণ সম্পাদক এম এ কাশেম, ইতালি আওয়ামী লীগের সভাপতি  ইদ্রিস ফারাজী, সাধারণ সম্পাদক হাসান ইকবাল, স্পেন আওয়ামী লীগের সভাপতি শাকিল খান পান্না, সাধারণ সম্পাদক জহিরুল আলম নয়ন, পর্তুগাল আওয়ামী লীগের সাবেক প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি রফিকউল্লাহ , সভাপতি জহিরুল আলম জসিম, সাধারণ সম্পাদক শওকত উসমান, বেলজিয়াম আওয়ামী লীগের সভাপতি বজলুর রশিদ বুলু, শহীদ, সাধারণ সম্পাদক পলিন মনির, সুইডেন আওয়ামী লীগের সভাপতি গোলাম আম্বিয়া ঝন্টু, সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর কবির , সহ-সভাপতি ড. ফরহাদ আলী খান প্রমুখ। অন্যদিকে, বিএনপি ইউরোপ আগামী ৪ নভেম্বর নেদারল্যান্ডে পার্লামেন্ট ভবনের সামনে এক বিক্ষোভ সমাবেশের অনুমতি নিয়েছে। বিএনপি ইউরোপের কয়েকজন নেতা সেখানে উপস্থিত থাকবেন। নেদারল্যান্ড বিএনপির নেতা মোহাম্মদ সারওয়ার ও এম এ মতিনের নেতৃত্বে ইতোমধ্যে বিক্ষোভ সমাবেশের প্রস্তুতি নেয়া হয়েছে। ইউরোপের অন্যান্য দেশ থেকে বিএনপি নেতারা যোগ দেবেন বলে ধারণা করা হচ্ছে।


কাতারে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূতের সঙ্গে আ.লীগ নেতার সাক্ষাৎ

শনিবার, ৩১ অক্টোবর ২০১৫

বাপসনিঊজ:দোহা: কাতারে নবনিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত আশুদ আহমদের সঙ্গে দেখা করে শুভেচ্ছা বিনিময় করেছেন আওয়ামী লীগ কাতার শাখার সভাপতি ওমর ফারুক চৌধুরী ও কাতার আওয়ামী লীগের অন্যান্য নেতারা।

alt 

সাক্ষাতকালে ওমর ফারুক নবনিযুক্ত রাষ্ট্রদূতকে আওয়ামী লীগ কাতার শাখার পক্ষ থেকে আন্তরিক শুভেচ্ছা জানান এবং সব ধরনের সহযোগিতার আশ্বাস দেন। তিনি আরো বলেন, আমরা আশা করছি রাষ্ট্রদূত দুই দেশের মধ্যে সম্পর্ক আগের চেয়ে আরো জোরদার করার লক্ষ্যে এবং বাংলাদেশ থেকে আরো বেশি বেশি শ্রমিক আনার ব্যাপারে কাজ করে যাবেন। 


৭ নভেম্বর উপলক্ষে ফিনল্যান্ড বিএনপির কর্মসূচি

শনিবার, ৩১ অক্টোবর ২০১৫

জামান সরকার, বাপসনিঊজ:হেলসিংকি:৭ নভেম্বর জাতীয় বিপ্লব ও সংহতি দিবস উপলক্ষে ফিনল্যান্ড বিএনপি দলের কর্মসূচি ঘোষণা করেছে।কর্মসূচির মধ্যে রয়েছে- ৭ নভেম্বর সকাল ৭টায় ফিনল্যান্ড বিএনপির কার্যালয়ে দলীয় পতাকা উত্তোলন। এছাড়াও ওইদিন সকাল ১০টায় জিয়াউর রহমানের প্রতিকৃতিতে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানাবেন দলীয় নেতাকর্মীরা। ঐদিন সন্ধ্যায় ভানতার তিক্কুরিলাতে আয়োজন করা হয়েছে এক আলোচনা সভার।দলের সাধারন সম্পাদক মবিন মোহাম্মদ আজ সন্ধ্যায় ফিনল্যান্ড বিএনপির নেতাকর্মীদের সাথে এক বৈঠক কালে এ আয়োজনের কথা বলেন এবং ফিনল্যান্ড বিএনপির ও এর অংগ সংগঠনের সকল নেতাকর্মীদের উপস্থিত থাকার অনুরোধ জানান।

alt

ফিনল্যান্ড বিএনপির সভাপতি জামান সরকারের সভাপতিত্বে এ বৈঠকে অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, সিনিয়র সহসভাপতি মোকলেসুর রহমান চপল, সহসভাপতি এজাজুল হক ভূঁইয়া রুবেল, বদরুম মনির ফেরদৌস, আওলাদ হোসেন, প্রদীপ কুমার সাহা, সিনিয়র যুগ্ম সম্পাদক মিজানুর রহমান মিঠু, সাংগঠনিক সম্পাদক গাজী সামসুল আলম, আবদুল্লাহ আল মাসুদ, যুগ্ম সম্পাদক আলাউদ্দিন আহমেদ, আবুল কালাম আজাদ, নিজাম আহমেদ, তাজুল ইসলাম, আনোয়ার হোসেন, সাইফুর রহমান সাইফ, মোস্তাক সরকার, আশরাফ উদ্দিন, মনিরুল ইসলাম, সোলেমান মো. জুয়েল, সাজ্জাদ মুন্না, নূরুল ইসলাম, সাগর, আরিফুজ্জামান বাবু, মামুন হোসেন, মুকুল হোসেন, সবুজ খান, রাসেল খান, জুয়েল, ফাহমিদ-উস-সালেহীন, হাসিব উদ্দিন, শাকিল নেওয়াজ, সাজিদ খান জনি, এমরান হোসেন খান, নজরুল ইসলাম প্রমুখ।


যুক্তরাজ্যে লাইকা মোবাইল টিফিন কাপ বেষ্ট সাউথ এশিয়া রেষ্টুরেন্ট এওয়ার্ড পেল সিলেটের শরীফ

বৃহস্পতিবার, ২৯ অক্টোবর ২০১৫

বাপসনিঊজ:যুক্তরাজ্যে লাইকা মোবাইল টিফিন কাপ বেষ্ট সাউথ এশিয়া রেষ্টুরেন্ট এওয়ার্ড ২০১৫ বিতরন অনুষ্টান সম্পন্ন হয়েছে। যুক্তরাজ্যের ১৩ টি রেষ্টুরেন্ট এই এওয়ার্ড অনুস্টানে অংশগ্রহণ করে ।লন্ডন হাউস অব কমন্স এ এওয়ার্ড ২০১৫ বিতরন অনুষ্টানে ব্রিটিশ এম পি হন কিথ বাজ সহ অন্যান্য এম পিরা উপস্থিত ছিলেন।এতে ফাষ্ট রানার আর্প এওয়ার্ড সিলেটের শরীফ আহমদ পরিচালিত ইষ্টার্ন কাউসিন গিপসহিল Eastern cuisine gipsyhill। ইষ্টার্ন কাউসিন গিপসহিল Eastern cuisine gipsyhill এর সত্বাধিকারী শরীফ আহমদ নগরীর হাউজিং এষ্টেট এলাকার স্থায়ী বাসিন্দা সাবেক চেয়্যারম্যান হাজী শফিক আহমেদ এর বড় ছেলে।তার এ এওয়ার্ড প্রাপ্তিতে যুক্তরাজ্যে বসবাসরত সিলেটীসহ বাঙালীদের মধ্যে ব্যাপক উৎসাহ উদ্দীপনা সৃষ্টি করে।

Picture

ইষ্টার্ন কাউসিন গিপসহিল Eastern cuisine gipsyhill এর সত্বাধিকারী শরীফ আহমদ তার এ পদক প্রাপ্তিতে কৃতঙ্গতা প্রকাশ করে বলেন এ পদক প্রাপ্তির আনন্দ শুধু আমাদের পরিবারের সফলতা নয় এটা পুরো সিলেট বাসীর সফলতা। তিনি সকলের সহযোগীতায় ইষ্টার্ন কাউসিন গিপসহিল Eastern cuisine gipsyhill এই সফলতা ধরে রেখে আরো বহুদুর এগিয়ে যেতে পারে সেই দোয়া কামনা করেন।


মালয়েশিয়ায় ফের অপহরণ আতংকে প্রবাসীরা

বৃহস্পতিবার, ২৯ অক্টোবর ২০১৫

আহমাদুল কবির/মালয়েশিয়া থেকে : মালয়েশিয়ায় ফের অপহরণ আতংকে ভুগছেন প্রবাসীরা । জানাগেছে, অপহরণকারিদের সঙ্গে আতাত রয়েছে দেশি বিদেশি প্রভাবশালী চক্র। দূতাবাসে অভিযোগ করেও প্রবাসীরা শান্তিতে নেই। হুমকি-ধামকি দিয়ে অপহরণ কারিরা তাদের মিশন চালিয়ে যাচ্ছে। দিন দিন বেড়েই চলেছে অপহরণের ঘটনা। এদিকে খোজ নিয়ে জানা গেছে, বাংলাদেশি ৩ ছাত্রকে অপহরণ করে অর্থ আদায়ের অভিযোগে অপর বাংলাদেশির নামে থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে। এ সময় তাদেরকে শারীরিক নির্যাতন করা হয়েছে বলেও অভিযোগ করেন ওই তিন ছাত্র।

ভুক্তভোগীদের একজন মিজানুর রহমান জানান, গত ১৪ অক্টোবর (বুধবার) ভোর সাড়ে তিনটায় দুইজন আমাদের বাসায় দরজায় নক করে। এদের একজন বাংলাদেশী অপরজন মালয়েশিয়ান। মালয়েশিয়ান লোকটি নিজেকে পুলিশের লোক পরিচয় দিয়ে আমার পাসপোর্ট দেখতে চায়। আমি তাকে আমার সব কাগজপত্রাদি দেখালে তিনি দেখে বলেন আমার সঙ্গে থানায় যেতে হবে মোহাম্মাদ আবু মুসা নামে একজনের সম্পর্কে জিজ্ঞাসাবাদ করা হবে।

Picture

মেলবোর্ণ ইউনিভার্সিটির ছাত্র মিজান আরও জানান, কালো রঙের একটি গাড়িতে উঠানো হয়। কুমিল্লা জেলার চান্দিনা উপজেলার বিচুন্দাইর গ্রামের মো: শামছুল হক মোল্লার ছেলে মো: আবু মুছা সহ সে গাড়িতে আরও কয়েকজন বাংলাদেশী আগে থেকেই অবস্থান করছিল। পরে সে গাড়িতে করেই তাদেরকে শহরের বাইরে নিয়ে একটি ভবনের ৮ তলার ফ্ল্যাটে হাত-পা বেঁধে আটকে রাখা হয়।

পরে তাদের একেকজনের কাছে ১৫ হাজার করে মোট ৪৫ হাজার রিঙ্গিত মুক্তিপণ চাওয়া হয়। মুক্তিপণ দিতে অস্বীকৃতি জানালে তিনজনকেই শারীরিকভাবে অত্যাচার করা হয়। এভাবে ৯ দিন আটকে রাখার পর অপর দুইজন ৩০ হাজার, আর মিজানুর রহমান দেশ থেকে আত্বিয়ের মাধ্যমে অপহরণ কারি গ্রুপের সদস্য মোহাম্মদ শাহজালালের সি আই এমবি ব্যাংকের  ৭০৫২৯১৫৪১০ একাউন্টে ২ হাজার ৫শ রিঙ্গিত মুক্তিপণ দিয়ে মুক্ত হয়। পুলিশ এখন এ ঘটনার তদন্ত করছে।

এদিকে মালয়েশিয়ায় অবস্থানরত বাংলাদেশিদের মধ্যে অপহরনের গটনা ছড়িয়ে পড়লে সবাই আতংক গ্রস্থ হয়ে পড়েছেন। দেশের ন্যায় বিদেশেও যদি এরকম অপহরণ ঘটনা ঘটে তা হলে দেশের ভাবমূর্তী ও ক্ষুন্ন হবে বলে মন্তব্য করেছেন প্রবাসীরা।