Slideshows

ব্যানার
ব্যানার
ব্যানার
ব্যানার
ব্যানার
ব্যানার

পরিচালনা পরিষদ 

সম্পাদক মন্ডলীর সভাপতি

ওসমান গনি
 

প্রধান সম্পাদক

হাকিকুল ইসলাম খোকন
 

সম্পাদক

সুহাস বড়ুয়া হাসু
 

সহযোগী সম্পাদক

আয়েশা আকতার রুবী

প্রবাসীদের খবর

ইতালিতে জালালাবাদ কমিটির সভাপতি শামীম, সম্পাদক লিপু

রবিবার, ২৯ জানুয়ারী ২০১৭

বাপ্ নিউজ : ইতালী: গত বুধবার ইতালীস্থ সিলেট বিভাগের সর্বস্তরের সম্মানিত ব্যাক্তিবর্গকে নিয়ে রোমের তারাপিনাত্তারাস্থ মিলনায়তনে জালালাবাদ কল্যাণ সংঘের জরুরী সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। সিলেট বিভাগের চার জেলার সমন্বয়ে বর্তমান সভাপতি অলিউদ্দিন শামীমকে পুনঃরায় সভাপতি ও এডভোকেট আহাম্মেদ ফারুক লিপুকে সাধারণ সম্পাদক, পলাশ সরকারকে সাংগঠনিক সম্পাদক ও সুলতান মাহমুদকে কোষাধ্যক্ষ করে ২০১৭-১৮ সালের জন্য জালালাবাদ কল্যাণ সংঘের পুর্ণাঙ্গ কমিটি ঘোষণা করা হয়।

Picture
অন্যান্য দায়িত্বশশীলরা হলেন সিনিয়ার সহ সভাপতি এম ডি আব্দুল ওয়াদুদ, সহ সভাপতি আফজাল আহমদ, মাহবুবুল কাদের ওয়েছ, সহ সাধারণ সম্পাদক জায়েদুল হক মুকুল, সাংগঠনিক সম্পাদক নুরুল ইসলাম, কোষাধ্যক্ষ রাজন রায়, প্রচার সম্পাদক বিজয় দেব, আইন বিষয়ক সম্পাদক কামাল চৌধুরী , দপ্তর সম্পাদক রেজাউল করিম, শিক্ষা ও সাংস্কৃতিক বিষয়ক সম্পাদক ময়নুল ইসলাম, আন্তর্জাতিক বিষয়ক সম্পাদক হাবিব তালুকদার, ক্রীড়া সম্পাদক শেখ দিলু, মহিলা বিষয়ক সম্পাদিকা লাভলী আক্তার,  সদস্য রেজাউল করিম রিপন, আরমান উদ্দিন স্বপন, আতিকুল ইসলাম, নিখিল বিশ্বাস।


যুক্তরাজ্যের ছায়ামন্ত্রী পদ থেকে সরে দাঁড়ালেন টিউলিপ

শনিবার, ২৮ জানুয়ারী ২০১৭

বাপ্ নিউজ : লন্ডন : যুক্তরাজ্যের বিরোধীদল লেবার পার্টির ছায়ামন্ত্রিসভা (শ্যাডো মিনিস্টার) থেকে পদত্যাগ করেছেন বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ভাগ্নি টিউলিপ রেজওয়ানা সিদ্দিকী। দলটির প্রধান জেরেমি করবিন বিষয়টি জানিয়েছেন।

স্থানীয় সময় বৃহস্পতিবার সকালে ব্রিটিশ সরকারের আনা ব্রেক্সিট বিলের (ইউরোপীয় ইউনিয়ন ছাড়ার সিদ্ধান্ত) পক্ষে সমর্থন জানান জেরেমি কারবিন। এর পরপরই পদত্যাগের সিদ্ধান্ত নেন টিউলিপ।টিউলিপ লন্ডনের হ্যাম্পস্টেড ও কিলবার্ন আসনের আইনপ্রণেতা (এমপি) হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন। তিনি শিক্ষাবিষয়ক ছায়ামন্ত্রণালয়ে প্রাক-প্রাথমিক শিক্ষার দায়িত্বে ছিলেন।

Picture

করবিনের কাছে দেওয়া পদত্যাগপত্রে টিউলিপ লেখেন, “আমি ‘আর্টিকেল ৫০’ (ইউরোপীয় ইউনিয়ন ত্যাগের পদ্ধতি) সমর্থন করি না। তাই সম্মুখ সারির নেতৃত্বের সঙ্গে একত্র হতে পারছি না।”

টিউলিপ চিঠিতে জানান, ইউরোপীয় ইউনিয়ন (ইইউ) ত্যাগের জন্য ভোট গ্রহণ শুরু করলে তাঁর এলাকার ভোটারদের সঙ্গে বিশ্বাসঘাতকতা করা হবে। ওই ভোটারদের তিন-চতুর্থাংশই ইইউতে থাকার পক্ষে ছিল।টিউলিপ চিঠিতে লেখেন, ‘আমি মনে করি, পেছনের সারিতে অবস্থান করেই আমি টেরেসা মের (ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী) ব্রেক্সিট সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে লড়াই চালিয়ে যেতে পারব।’

‘আমি সব সময়ই এ বিষয়ে পরিষ্কার ছিলাম যে আমি হ্যাম্পস্টেড ও কিলবার্নের হয়ে ওয়েস্টমিনস্টারের সমর্থন করি না, বরং ওয়েস্টমিনস্টারের হয়ে হ্যাম্পস্টেড ও কিলবার্নের সমর্থন করি।’


২০১৫ সালে জুনে অনুষ্ঠিত গণভোটে ইউরোপীয় ইউনিয়ন থেকে বেরিয়ে যাওয়ার (ব্রেক্সিট) পক্ষে সমর্থন দেন যুক্তরাজ্যের জনগণ। কিন্তু টিউলিপের নির্বাচনী এলাকা হ্যাম্পস্টেড ও কিলবার্নের  ৭৫ শতাংশ ভোটারই ব্রেক্সিটের বিপক্ষে ভোট দিয়েছিলেন।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ভাগ্নি টিউলিপ ২০১৫ সালে লেবার পার্টির হয়ে  লন্ডনের হ্যাম্পস্টেড ও কিলবার্ন আসনে সংসদ সদস্যপদ পান।


কুয়েতে আপনজন'র পিঠা উৎসব

বুধবার, ২৫ জানুয়ারী ২০১৭

বাপ্ নিউজ : কুয়েত : নবান্নের পিঠা উৎসব অনুষ্ঠিত হল তৈল সমৃদ্ধ ধনী দেশ কুয়েতের মরু ভুমির সবুজ মাঠে। আপনজন এর ব্যনারে বেশ কিছু পরিবার এই পিঠা উৎসবের আয়োজন করেন। শুক্রবার কুয়েতে রিগাই পার্কে মরুর বুকে সবুজে খন্ডিত মাঠে এই উৎসবের আয়োজন করেন আপনজন পরিবার। 

Picture

প্রধান আয়োজক মোহাম্মদ ফরিদ উদ্দিন এর সভাপতিত্বে মোহাম্মদ সোহেল রানা, নাজমুল হাসান, মাহবুব খান ও হাকিম মিয়ার সার্বিক পরিচালনায় উৎসবে ভাপা পিঠা, চিতল পিঠা, পাটি সাপটাসহ অসংখ্য দেশীয় মুখরোচক সুস্বাধু পিঠার সমাহার ঘটে।আর শাহী বিরানী ভোজন প্রেমীদের আত্মতৃপ্তির পাশাপাশি ছোট বড়দের নানা খেলার মধ্যদিয়ে সকাল থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত আনন্দে মেতে থাকেন প্রবাসীরা। এতে বিশেষ অতিথি ছিলেন মাহফুজুর রহমান। অনুষ্ঠানে শেষে বিজয়ীদের মাঝে পুরস্কার বিতরণ করেন আয়োজকরা।


মালয়েশিয়ায় আইএস জঙ্গি সন্দেহে দুই বাংলাদেশি গ্রেপ্তার

মঙ্গলবার, ২৪ জানুয়ারী ২০১৭

বাপ্ নিউজ : মালয়েশিয়া থেকে : মালয়েশিয়ায় জঙ্গিগোষ্ঠী ইসলামিক স্টেটের (আইএস) সঙ্গে জড়িত সন্দেহে দুই বাংলাদেশি নাগরিককে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। গতকাল সোমবার দেশটির নিউ স্ট্রেইটস টাইমস পত্রিকার প্রতিবেদনে এই তথ্য জানানো হয়।খবরে বলা হয়, দেশটির পুলিশ বাহিনীর সন্ত্রাসবিরোধী বিশেষ শাখার সদস্যরা আইএসের একটি আস্তানা গুঁড়িয়ে দিয়েছে। এ ঘটনায় চারজনকে গ্রেপ্তার করা হয়। গ্রেপ্তার হওয়া ব্যক্তিদের মধ্যে দুজন বাংলাদেশি রয়েছেন। রাজধানী কুয়ালালামপুর ও সাবাহ প্রদেশে গত ১৩ থেকে ১৯ জানুয়ারির মধ্যে ধারাবাহিক অভিযান চালিয়ে ওই চার ব্যক্তিকে গ্রেপ্তার করে দেশটির পুলিশ।

Picture

গ্রেপ্তার হওয়া ব্যক্তিদের নাম-পরিচয় পুলিশ প্রকাশ করেনি।তবে পুলিশ বলছে, গ্রেপ্তার হওয়া চারজনের মধ্যে একজন ফিলিপাইনের ও একজন মালয়েশিয়ার নাগরিক। এই দুজনকে গত ১৩ জানুয়ারি সাবাহ প্রদেশ থেকে একসঙ্গে গ্রেপ্তার করা হয়। গ্রেপ্তার হওয়া বাকি দুজন বাংলাদেশি।বাংলাদেশি দুজনের বয়স ২৭-২৮ বছর। তাঁরা বিক্রয়কর্মী হিসেবে কাজ করছিলেন। গত বৃহস্পতিবার কুয়ালালামপুর থেকে তাঁদের গ্রেপ্তার করা হয়। দেশটির পুলিশের মহাপরিদর্শক (আইজিপি) তান শ্রি খালিদ আবু বকর বলেন, আইএসের একটি নতুন সেল ভেঙে দেওয়া হয়েছে। আইএসের সঙ্গে জড়িত সন্দেহে চারজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।


ডেনমার্কে বাঙালিদের পিঠা উৎসব

রবিবার, ২২ জানুয়ারী ২০১৭

বাপ্ নিউজ : ডেনমার্ক ,কোপেনহেগেন থেকে :ডেনমার্কের রাজধানী কোপেনহেগেনে শনিবার ডেনমার্ক প্রবাসী বাঙালিরা শীতকালীন পিঠা উৎসবের আয়োজন করে। প্রবাসে বাঙালি সংস্কৃতিকে লালন করে বলেই বাঙালিরা নানা ধরনের পিঠা সমারোহে বাহারি রঙে উৎসবমুখর এই মেলার স্টলগুলো ছিলো সুসজ্জিত।বাঙালির লোকজ সংস্কৃতির চির ঐতিহ্য হরেক রকমের পিঠা। পুলি পিঠা, ভাপা পিঠা, চিতই পিঠা, ঝাল পিঠা, চিত্ত হরণ, চিড়া পিঠাসহ নানা ধরনের পিঠার অায়োজনে মেলার শোভাবর্ধন করা হয়। মেলায় অাগত সকলে নানান দেশিয় পিঠা পরিবেশন ও স্বাদ উপভোগ করেন।

Picture

প্রবাসে থেকে ও এক সাথে সব ধরনের পিঠা দেখা ও স্বাদ নিতে পারায় অংশগ্রহণকারীদের মাঝে ব্যাপক উচ্ছাস দেখা যায়। পিঠা উৎসবের সাথে বাঙালির লোকজ গান এর মূর্ছনা ছিল উপভোগ্য। ডা. সানন্দা ইকবাল এর সার্বিক সমন্বয়ে ডেনমার্ক প্রবাসী বাঙালিরা পিঠা উৎসবের আয়োজন করে। উৎসবমুখর পরিবেশ এ ডেনমার্ক এর পরিচিত শিল্পী ওমর এর গান ছিল অনন্য পরিবেশনা। পিঠা উৎসবের শেষে র্যাফেল ড্র অনুষ্ঠিত হয়।

alt

ডেনমার্কের বিশিষ্ট ব্যক্তিদের মধ্যে বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল আলিম, ডেনমার্ক আওয়ামী লীগ এর সভাপতি ইকবাল হোসেন মিঠু, সাধারণ সম্পাদক ড. বিদ্যুৎ বড়ুয়া, সংগীত শিল্পী মো. শোয়েব, জাহাঙ্গীর আলম, সোমা সিদ্দিকা, হিল্লোল বড়ুয়া, কোহিনূর আখতার মুকুল, ইফতেখার সম্রাটসহ আরো অনেকে উৎসবে অংশগ্রহণ করেন।


মালয়েশিয়ায় পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রীর সঙ্গে আ.লীগ নেতাদের সাক্ষাৎ

বৃহস্পতিবার, ১৯ জানুয়ারী ২০১৭

আহমাদুল কবির, বাপ্ নিউজ : মালয়েশিয়া থেকে : মালয়েশিয়া সফররত পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলমের সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাৎ করেছেন মালয়েশিয়া আওয়ামী লীগ নেতৃবৃন্দ।বুধবার সন্ধ্যায় কুয়ালালামপুরে জে ডব্লিউ ম্যারিয়ট হোটেলে প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলমেরর সঙ্গে দেখা করেন মালয়েশিয়া আওয়ামী লীগের আহ্বায়ক এম রেজাউল করিম রেজার নেতৃত্বে আওয়ামী লীগ নেতাকর্মীরা।

Picture

এ সময় উপস্থিত ছিলেন- যুগ্ম আহ্বায়ক অহীদুর রহমান অহীদ, সাবেক সহ-সভাপতি জসীম উদ্দিন চৌধুরী, যুগ্ম আহাবায়ক মাহতাব খন্দকার, সাবেক সহ-সভাপতি হাজী আব্দুল হামিদ জাকারিয়া, তাজুল ইসলাম মান্না, শফিকুর রহমান চৌধুরী, মিনহাজ উদ্দিন মিরান, হুমায়ূন কবির, হুমায়ূন কবির আমির, আলমগীর হুসাইন, রফিক আহমদ খান, শাহ সুমন, শাখাওয়াত হোসেন, শাহীন পাটোয়ারি, কবিরুজ্জামান জীবন, ইকবাল গনি প্রমুখ।

 আজ (বৃহস্পতিবার) কুয়ালালামপুরে ওআইসি সদস্যভুক্ত দেশগুলোর পররাষ্ট্রমন্ত্রীদের বিশেষ সভায় অংশ নেবেন বাংলাদেশের পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী। মিয়ানমারের রোহিঙ্গা মুসলিমদের উপর নির্যাতন বন্ধের দাবিতে সোচ্চার মালয়েশিয়ার প্রধানমন্ত্রী নাজিব বিন রাজ্জাকের উদ্যোগে কুয়ালালামপুরে ওআইসির এ বিশেষ সভার আয়োজন করা হয়।


আছির প্রদেশ কেন্দ্রীয় বঙ্গবন্ধু পরিষদ আলোচনা সভা

বুধবার, ১৮ জানুয়ারী ২০১৭

মোস্তফা জাহেদ, বাপ্ নিউজ : সৌদী আরব:: আছির প্রদেশ কেন্দ্রীয় বঙ্গবন্ধু পরিষদ আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। ১০ জানুয়ারী রাতে সৌদী আরব আছির প্রদেশ কেন্দ্রীয় বঙ্গবন্ধু পরিষদ অস্হায়ী কার্যালয়ে উৎসাহ উদ্দিপনায় উদযাপিত হয় এই আলোচনা সভা ।

Picture

উক্ত আলোচনা সভায় সভাপতিত্ব করেন, বঙ্গবন্ধু পরিষদ আছির কেন্দ্রীয় কমিটির সিনিয়র সভাপতি আলহাজ্ব মো:বেলাল উদ্দিন । সভা সঞ্চালনায় ছিলেন সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক এইচ এম জাহাঙ্গীর আলম।

IMG_20170111_001021

প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, বঙ্গবন্ধু পরিষদ এর আছির প্রদেশ কেন্দ্রীয় কমিটির প্রধান উপদেষ্টা সাবেক ছাত্রনেতা সৌদি জামান হাসপাতাল আছির প্রদেশের সাপোর্ট সাভিসেস ম্যানেজার মো: আবু বক্কর কামাল। বিশেষ অতিথি উপস্থিত ছিলেন সংগঠনের উপদেষ্টা সাবেক ছাত্রনেতা মো:নুরুল আবছার।প্রধান বক্তা হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, বঙ্গবন্ধু পরিষদ এর যুগ্ন সম্পাদক সাবেক ছাত্রনেতা আজাদ রহমান ।

IMG_20170111_000048

সভায় অন্যন্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন, সভাপতি মন্ডলীর সদস্য মো: শফিউল আজম , আওয়ামীলীগ নেতা মো:জাহাঙ্গীর আলম, সহ-সভাপতি আলমগীর আলম , সহ-সভাপতি মো:শেলু রহমান, সাংগঠনিক সম্পাদক এম.এ.রহিম ফারুকী, সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক মো: আশরাফ চৌধুরী, সাবেক ছাত্রনেতা মো: বেলাল উদ্দিন, প্রচার সম্পাদক মো: মনসুর আলম (বাবু) , প্রকাশনা সম্পাদক সাংবাদিক মোস্তফা জাহেদ(লিটন), সহ-প্রকাশনী সম্পাদক কায়ছার আহমেদ প্রমুখ ।


লেবানন প্রবাসী বাংলাদেশি পরকিয়া প্রেমে শিশু সন্তানকে হত্যা

মঙ্গলবার, ১৭ জানুয়ারী ২০১৭

ওয়াসীম আকরাম :বাপ্ নিউজ : লেবানন:: লেবানন প্রবাসি লিভ টুগেদার জুটির অবৈধ এই শিশুটির স্থান হল পলিথিনে মোড়ানো লাশ হয়ে ডাস্টবিনে. !! লেবানন এর রাজধানী বৈরুত শনিবার রাতে ঘটনাটি ঘটিয়েছে শিশুটির মা “রোমা” ও মায়ের দ্বিতীয় সংগী মিলেই। শিশুটির জন্মদাতা বাবা “নান্নু” ও শিশুটির জন্মের পর দ্বিতীয় সংগী নিয়ে অন্যত্র থাকে। উভয়ের দেশের বাড়ি ফরিদ পুর।
লেবানন পুলিশ শিশুর লাশ উদ্ধার করে খুনি মা ও দ্বিতীয় সংগীকে ঐ রাতেই একবিছানা থেকে গ্রেফতার করে। বর্তমানে শিশুর বাবাকে খোঁজা হচ্ছে যা লেবানন মিডিয়ার শিরোনাম ও টক অব দ্যা কান্ট্রি লেবানন।।

Picture

লেবানন মিডিয়ার খবর অনুযায়ী শিশুটির মা নিজ হাতে খুন করে শিশুটিকে। গলায় ফাঁস ও যৌনাংগে আঘাত চিহ্ন শিশুটির  গাঁয়ে পাওয়া গেছে।শিশুর মা পুলিশ কে বলছে তার দ্বিতীয় সংগী তার মেয়ে কে মেনে নিতে পারছিলনা। অন্যদিকে ছেলেটিকে তার খুব পছন্দ তাই ছেলেটির সাথে স্বাচ্ছন্দ্যো সংগ দিয়ে মন জয় করার আশায় এ কাজ করছে।

লেবানন বিভিন্ন সামাজিক সংগঠন  এমন কাজের তীব্র নিন্দা জ্ঞাপন করে বর্তমান সরকারের দৃষ্টি আকর্ষণ করার জন্য বলেন, এ ঘটনা লেবানন প্রবাসি বাংলাদেশীদের জন্য খুবই লজ্জ্বার এবং পুলিশি হয়রানিতে পড়ার কারন হয়েছে। তাই বাংলাদেশ দূতাবাস  মাধ্যমে এ ঘটনার সুরাহ করে আসামি দেশে নিয়ে মৃত্যুদণ্ড দেবার দাবী জানানো হয়।

আর দেশবাসীর কাছে অনুরোধ আপনারা যারা নিজের স্ত্রীকে মেয়েকে লেবানন পাঠিয়ে দেশে বসে হাজার হাজার টাকা গুনছেন তারা সতর্ক হউন। এদেশে ইলিগেল বা ফ্রি ভিসায় থাকা ৯৯.৯৯% নারী -মেয়েলোক সিরিয়ান, সুইদানী,আফ্রিকান, হিন্দি,পাকিস্তানি, মিশরীয়  ও ক্ষেত্র বিশেষ  বাংলাদেশি কাউকে স্বামী বানিয়ে লিভ টুগেদার করে দেশে গিয়ে স্বামী সংসার করে। এদেশে বাংলাদেশি  মেয়েদের দ্বারা বহু বাঙালী নির্যাতন ও হয়রানির শিকার।
তাই মহিলা কর্মীর ভিষা বন্ধেরও আহবান জানান।


ইতালীর মহিলা সমাজ কল্যাণ সমিতির শীতকালীন বনভোজন

সোমবার, ১৬ জানুয়ারী ২০১৭

Picture

রিয়াজ হোসেন ,বাপ্ নিউজ : রোম,ইতালি : শীতের শুরুতে ইউরোপের বিভিন্ন শহর জুড়ে তুষারপাতে জনজীবন বিপর্যস্ত  হলেও রোমে নেই কোন তুষার।আর এই তুষারপাত দেখার জন্য মহিলা সমাজ কল্যাণ সমিতি আয়োজন করেছে তুষারপাত দেখার জন্য শীতকালীন বনভোজন। ইতালীর আবরুজ্জো শহরের কাম্পো ডি ফেলেসি নামক স্থানে বরফে আস্ছাদিত পাহাড়ের মধ্যে  মধ্যে বনভোজনের আয়োজন করে।

 

মহিলা সমাজ কল্যান সমিতির সভানেএী লায়লা শাহ র নেতৃত্বে রোম থেকে শতাধিক প্রবাসী বাস যোগে ছুঠে যায় কাম্পো ডি ফেলেসিরপাদদেশে। 

তুষারপাতের মধ্যে আনন্দ উল্লাসেমেতে উঠেন অংশগ্রহনকারী প্রবাসীরা। ক্যাবল কারের মাধ্যমে এক পাহাড় থেকে অন্য এক পাহাড়ের রোমাঞ্চ এক অভিজ্ঞ ও উল্লাস ছিলো চোখে পড়ার মত।
 

 

মহিলা সমাজ কল্যান সমিতির সহ সভাপতি নার্গিস  আক্তার ছাড়াও সাংবাদিক খান রিপন, শিমুল রহমান ছাড়াও জাহাঙ্গীর আলম, রুহুল আমিন রাহুল, খান রবিন, ব্যবসায়ী হুমায়ুন কবির সহ প্রবাসী শীতকালীন এই বনভোজনে অংশগ্রহন করেন।

 
সংগঠনের সভাপতি লায়লা শাহ বলেন সৃস্টি কর্তার সৃস্টি প্রাকৃতিক দৃশ্য দেখার জন্যই আমাদের এই আয়োজন আগামী দিনে ইউরোপের বিভিন্ন দেশে দর্শনীয় জায়গাগুলোতে সবাই একএে ঘুরতে যাওয়ার পরিকল্পকনা রয়েছে।


বাংলাদেশ গ্লোবাল সামিট : যা আছে কুয়ালালামপুর ডিক্লারেশনে

সোমবার, ১৬ জানুয়ারী ২০১৭

মাঈনুল ইসলাম নাসিম : বাপ্ নিউজ : ইউরোপ ভিত্তিক বাংলাদেশী ডায়াসপোরা সংগঠন অল ইউরোপিয়ান বাংলাদেশ এসোসিয়েশন (আয়েবা)’র ব্যবস্থাপনায় ১৯-২০ নভেম্বর ২০১৬ মালয়েশিয়ার মাটিতে ব্যতিক্রমী আয়োজন ১ম বাংলাদেশ গ্লোবাল সামিটের যবনিকাপাত ঘটে ২৩ দফা ‘কুয়ালালামপুর ঘোষণা’ বাস্তবায়নের অঙ্গীকারের মধ্য দিয়ে। বাংলাদেশ সহ সারা বিশ্ব থেকে আগত পেশাদার বাংলাদেশীরা এতে যোগ দেন। প্রবাসী বিশ্বসম্মেলনের ২ দিনব্যাপী কর্মসূচীতে অংশগ্রহনকারীদের আলোচনা, মতামত ও সুপারিশের ভিত্তিতে ‘কুয়ালালামপুর ডিক্লারেশন’ প্রণয়নের দায়িত্বে ছিলেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ইনস্টিটিউট অব বিজনেস এডিমিনিস্ট্রেশন (আইবিএ)’র প্রফেসর ড. সৈয়দ ফরহাত আনোয়ার। চলুন দেখা যাক কী আছে ২৩ দফা কুয়ালালামপুর ডিক্লারেশনে।

Picture

(১) কুয়ালালামপুর ডিক্লারেশনে ব্যবহৃত ‘ডায়াসপোরা’ হচ্ছেন ঐ সকল ব্যক্তি যারা যে কোন কারনেই হোক মাতৃভূমি থেকে দূরে অবস্থান করছেন তথা নিজ রাষ্ট্রীয় ভূখন্ডের বাইরে যাদের বসবাস। তারা তাদের মাতৃভুমিকে ভালোবাসেন। তারা বেশ আশাবাদী এবং জীবনের একটা পর্যায়ে নিজ মাতৃভূমিতে প্রত্যাবর্তনের ইচ্ছেও পোষণ করেন।

(২) বাংলাদেশে সাম্প্রতিককালে প্রণীত ‘দ্বৈত নাগরিকত্ব আইন’ নিয়ে সামিটে বিস্তারিত আলোচনা হয়েছে। সামিটে এইমর্মে সুপারিশ করা হয়েছে যে, বাংলাদেশী ডায়াসপোরা এবং তাদের দ্বিতীয় ও পরবর্তি জেনারেশনের নাগরিক অধিকার সংরক্ষনকল্পে বাংলাদেশ সরকারের উচিত হবে পরামর্শমূলক একটি প্রক্রিয়ায় প্রবাসী প্রতিনিধিদের সম্পৃক্ত করা।
 
(৩) সারা বিশ্বে কর্মরত বাংলাদেশী কর্মীদের অধিকার সংরক্ষণ এবং সুযোগ সুবিধা নিশ্চিত করার বিষয়টি সামিটে আলোচনা হয়েছে এবং এর জন্য বিভিন্ন দেশে অবস্থিত বাংলাদেশ দূতাবাস, হাইকমিশন ও কনস্যুলেট অফিস সমূহকে সক্ষম করা তোলার পরামর্শ দেয়া হয়েছে সামিটে।

(৪) যে সকল দেশে বড় বাংলাদেশ কমিউনিটি রয়েছে অর্থাৎ যেসব দেশে বাংলাদেশীদের সংখ্যা তুলনামূলকভাবে বেশি, তাদের জন্য সেবামূলক কার্যক্রম বাড়াতে এই সকল দেশে অবস্থিত বাংলাদেশ দূতাবাস বা হাইকমিশন বা কনস্যুলেট অফিস কর্তৃক একটি ‘এক্সক্লুসিভ ডায়াসপোরা সার্ভিস’ চালু করার প্রয়োজনীয়তা অনুভূত হয়েছে সামিটে।

(৫) সামিটে এইমর্মে আশাবাদ ব্যক্ত করা হয় যে, বাংলাদেশী ডায়াসপোরা কমিউনিটি যারা রেমিটেন্স পাঠিয়ে মাতৃভূমির অর্থনীতির চাকাকে সচল রাখছে, তাদের জন্য বাংলাদেশের ব্যাংকিং সেক্টরের মাধ্যমে ‘নিরাপদ বন্ড’ সহ বিনিয়োগ সুবিধা বাড়াবার উদ্যোগ নিতে পারে বাংলাদেশ সরকার। এতে করে বৈধ চ্যানেলে রেমিটেন্স আহরণ আরো নিশ্চিত হবে।

(৬) ‘গ্রাসরুট লেভেল’ থেকে ‘ডিসিশন মেকিং লেভেল’ অর্থাৎ তৃণমূল থেকে শুরু করে রাষ্ট্রীয় পর্যায়ে ব্যবসা-বানিজ্য এবং সামাজিক উন্নয়ন কর্মকান্ডে বাংলাদেশী ডায়াসপোরাকে সম্পৃক্ত করার অনুরোধ জানানো হয়েছে সামিটে।

(৭) দেশের সামাজিক উন্নয়নমূলক খাতে প্রাতিষ্ঠানিকভাবে বাংলাদেশী ডায়াসপোরা কমিউনিটি কর্তৃক বিনিয়োগের পথ যাতে প্রশস্ত হয়, এ ব্যাপারে অনুরোধ জানানো হয়েছে সামিট থেকে।

(৮) ডায়াসপোরা কমিউনিটির প্রতিনিধিদের নিয়ে রাষ্ট্রীয় কাঠামোর ভেতরে একটি ‘পরামর্শক বোর্ড’ সরকারীভাবেই গঠন করা যেতে পারে, যারা নিবেদিত হবে ডায়াসপোরা কমিউনিটির কল্যাণে।

(৯) ডায়াসপোরা কমিউনিটির স্বার্থ সংশ্লিষ্ট বিভিন্ন ইস্যুতে বাংলাদেশের সংবাদ মাধ্যম সহযোগিতা অব্যাহত রাখবে, এমন আশাবাদ ব্যক্ত করা হয়েছে সামিটে। এক্ষেত্রে ‘কুয়ালালামপুর ডিক্লারেশন’ বাস্তবায়নের লক্ষ্যে মিডিয়াতে বিভিন্ন অনুষ্ঠান আয়োজনের অনুরোধ জানানো হয়েছে। এই ধরনের অনুষ্ঠানের জন্য মিডিয়াকে সহায়তার হাত প্রসারিত করবে ডায়াসপোরা কমিউনিটি।

(১০) বাংলাদেশী ডায়াসপোরা কমিউনিটি অধ্যুষিত যেসব দেশে গার্মেন্টস সেক্টরে কর্মী ও এজেন্ট হিসেবে মূলত নন-বাংলাদেশীরা কাজ করে যাচ্ছে, সেসব দেশের সুনির্দিষ্ট এই সেক্টরে বাংলাদেশীদের জন্য কর্মসংস্থানের সুযোগ সৃষ্টি করা যেতে পারে, এমনটাই সুপারিশ করা হয়েছে সামিটে।

(১১) সামিট থেকে প্রস্তাব করা হয়েছে যাতে বাংলাদেশী ডায়াসপোরা এসোসিয়েশন সমূহ একটি ‘মনিটরিং সেল’ গঠন করে, যার কাজ হবে ডায়াসপোরা কমিউনিটির স্বার্থ রক্ষায় নজর দেয়া এবং যথাযথ মাধ্যমে (প্রপার চ্যানেলে) তারা রিপোর্ট করতে পারে বাংলাদেশ সরকারকে।

(১২) বিশ্বের বিভিন্ন দেশে বাংলাদেশী ডায়াসপোরা কমিউনিটিতে যেসব সাফল্য এবং চ্যালেঞ্জ রয়েছে, তার একটি ডাটাবেজ যাতে বাংলাদেশ দূতাবাস, হাইকমিশন ও কনস্যুলেট অফিস সমূহে তৈরী হয়, তার জন্য বাংলাদেশ সরকারকে অনুরোধ জানানো হয়েছে সামিটে।

(১৩) সামিটে সুষ্পষ্টভাবে বলা হয়, ডায়াসপোরা কমিউনিটিই বিভিন্ন দেশে বাংলাদেশের প্রকৃত রাষ্ট্রদূত বা হাইকমিশনার। বিশ্বজুড়ে বাংলাদেশের ভাবমূর্তি উজ্জল করতে দেশে দেশে বিভিন্ন গঠনমূলক কর্মসূচী গ্রহন করার জন্য ডায়াসপোরা কমিউনিটিকে অনুরোধ জানানো হয়েছে সামিটে।

(১৪) সামিটে এই বিষয়েও আলোচনা হয়েছে যে, ডায়াসপোরা কমিউনিটির উচিত হবে বিভিন্ন দেশে বসবাসরত বাংলাদেশীদের একটি ডাটাবেজ প্রণয়ন করা, যেখানে কমিউনিটির সদস্য-সদস্যাদের জীবনবৃত্তান্ত ও পেশাদারী দক্ষতার তথ্য সংরক্ষিত থাকবে। যখনই প্রয়োজন হবে তখন এই ডাটাবেজ থেকে উপকৃত হবে বাংলাদেশ।

(১৫) বাংলাদেশের সকল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর, সমুদ্রবন্দর এবং স্থলবন্দর সমূহে সুযোগ সুবিধা ও সেবার মান বাড়াতে বাংলাদেশ সরকারের বিভিন্ন পদক্ষেপ গ্রহন করা উচিত, এই ইস্যুতেও দৃষ্টি আকর্ষণ করা হয়েছে সামিটে। দেশের ভাবমূর্তির সার্বিক উন্নয়নে এটি বিশেষ সহায়ক হবে।

(১৬) বাংলাদেশের আশাব্যাঞ্জক পারফরম্যান্স যে খাতে, অর্থাৎ পোশাক শিল্পকে আরো বিকশিত করার মাধ্যমে যাতে ব্যবসা বানিজ্যের আরো সুযোগ সৃষ্টি হয়, তার জন্যও সুপারিশ করা হয়েছে সামিটে। এই সেক্টরকে ঘিরে অ্যাপারেল ডিপ্লোমেসি (বস্ত্র কূটনীতি)’র পাশাপাশি তথ্য প্রযুক্তি, ফার্মাসিউটিক্যালস, কৃষি প্রক্রিয়াজাতকরণ (পাট সহ) অন্যান্য উৎপাদন এবং সেবা খাতের উন্নয়ন ও বিকাশ সাধন অত্যাবশ্যক মনে করা হয়েছে সামিটে।

(১৭) সামিটে আশাপ্রকাশ করা হয়েছে যে, ডায়াসপোরা কমিউনিটি বিভিন্ন দেশের বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর সাথে একাডেমিক সম্পর্ক প্রতিষ্ঠা করবে, যাতে এই সকল বিশ্ববিদ্যালয় থেকে বাংলাদেশের জন্য গবেষণা এবং উন্নয়নমূলক (রিসার্চ এন্ড ডেভেলপমেন্ট) সহযোগিতা পাওয়া যায়। বাংলাদেশ থেকে অর্থ বাইরে চলে যাওয়া কমাতে এবং শিক্ষার মান উন্নয়নে বিভিন্ন দেশের স্বীকৃত বিশ্ববিদ্যালয়গুলোকে বাংলাদেশে নিয়ে আসতে কাজ করতে পারে ডায়াসপোরা কমিউনিটি।

(১৮) মাতৃভূমির অর্থনীতিকে সমৃদ্ধ করার লক্ষ্যে বাংলাদেশী ডায়াসপোরাকে উদ্বুদ্ধ (মোটিভেট) করতে হবে। তারা যাতে বাংলাদেশের বিভিন্ন সেক্টরে বিদেশী বিনিয়োগ (ইনভেস্টমেন্ট) নিয়ে আসে, এমনটা গুরুত্ব সহকারে বলা হয়েছে সামিটে।

(১৯) বিভিন্ন দেশে বাংলাদেশ দূতাবাস, হাইকমিশন ও কনস্যুলেট অফিস সমূহ কর্তৃক প্রদত্ত পরিসেবা (সার্ভিস) সম্পর্কে আলোচনা হয়েছে সামিটে। ব্যবসা বানিজ্যের সুযোগ থাকা সত্বেও যেসব দেশে বাংলাদেশ দূতাবাস বা হাইকমিশন বা কনস্যুলেট অফিস কোনটাই নেই, সেসব দেশে কনস্যুলার সহ অন্যান্য সেবা যথাসময়ে এবং নিয়মিত প্রদানের তাগিদও দেয়া হয়েছে সামিটে।

(২০) বাংলাদেশের বাইরে দক্ষ (স্কিল্ড) কর্মীর চাহিদা ও গুরুত্ব বৃদ্ধি পাবার প্রেক্ষিতে সামিটে বাংলাদেশের সরকার ও প্রাইভেট সেক্টরকে অনুরোধ জানানো হয়েছে, যাতে আন্তর্জাতিক শ্রমবাজারের পরিস্থিতির সাথে সামঞ্জস্য রেখে বাংলাদেশী কর্মীদের কারিগরী দক্ষতা বৃদ্ধি ও মান উন্নয়নে মনোনিবেশ করা হয়।

(২১) ভবিষ্যতে এই ধরনের সামিটে নারীদের অংশগ্রহন আরো বাড়াবার পাশাপাশি ডায়াসপোরা কমিউনিটি সমূহের কার্যক্রমে তাদেরকে আরো বেশি সম্পৃক্ত করার সুপারিশ করা হয়েছে সামিটে। বাংলাদেশের সামাজিক ও অর্থনৈতিক খাতে ডায়াসপোরা কমিউনিটির নারী সদস্যাদের অংশগ্রহন ও বিনিয়োগের জন্য বিশেষ সুযোগ সৃষ্টিরও অনুরোধ জানানো হয়েছে বাংলাদেশ সরকার সমীপে।

(২২) পর্যটনকে অগ্রাধিকার দেবার পাশাপাশি বাংলাদেশের গুরুত্বপূর্ণ এই সেক্টরে অবকাঠামোগত উন্নয়ন ও সুযোগ সুবিধা বাড়াবার সুপারিশ করা হয়েছে সামিটে। এক্ষেত্রে দেশকে ‘হাইলাইট’ করার মতো বিশেষ কোন একটি ‘থিম’ ব্যবহার করা যেতে পারে। ‘ব্র্যান্ড’ তৈরীতে ডায়াসপোরা কমিউনিটিকে সম্পৃক্ত করা সম্ভব, যারা চাইলে এই পর্যটন খাতে বিনিয়োগও করতে পারে।

(২৩) অনবাসী সকল বাংলাদেশীদের জন্য বছরে একটি দিন ‘ডায়াসপোরা ডে’ অথবা ‘প্রবাসী বাংলাদেশী দিবস’ হিসেবে পালনের প্রস্তাব করা হয়েছে সামিটে। বাংলাদেশ সরকার কর্তৃক ঘোষিত হলে বিশেষ এই দিনটি সারা বিশ্বে একযোগে উদযাপিত হবে।


এমএ গনিকে সুইজারল্যান্ড আওয়ামী লীগের অভ্যর্থনা

সোমবার, ১৬ জানুয়ারী ২০১৭

বাপ্ নিউজ : স্পেন প্রতিনিধি : সুইজারল্যান্ডের জুরিখ আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে (১৫ জানুয়ারি) রোববার সর্ব ইউরোপিয়ান আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এমএ গনিকে ফুল দিয়ে অভ্যর্থনা জানিয়েছে সুইজারল্যান্ড নেতৃবৃন্দ। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা পাঁচ দিনের সরকারি সফরে আজ সোমবার সকালে সুইজারল্যান্ডের দাভোস শহরে পৌঁছবেন। সেই অনুষ্ঠানে যোগ দিতে এমএ গনি সুইজারল্যান্ডের জুরিখ এসে পৌঁছালে সেখানকার আওয়ামী লীগের নেতৃবৃন্দ বিমানবন্দরে তাকে এই অভ্যর্থনা দেন।

এমএ গনিকে অভ্যর্থনা জানানোর সময় বিমানবন্দরে উপস্থিত ছিলেন সুইজারল্যান্ড আওয়ামী লীগের আহ্বায়ক ইমরান খান মুরাদ,  যুগ্ম আহ্বায়ক নজরুল জমাদ্দার , আমজাদ চৌধুরী, সদস্য সচিব খলিলুর রহমান, ডেনমার্ক আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ড. বিদ্যুৎ বড়ুয়া, সুইডেন আওয়ামী লীগের যুগ্ম আহ্বায়ক মনজুরুল হাসান, ইঞ্জিনিয়ার মাহফুজুর রহমান, সফিকুল আলম লিটন, হেদায়েতুল ইসলাম শেলী, স্পেন আওয়ামী লীগের নেতা রিজভী আলম, সুইজারল্যান্ড আওয়ামী লীগের নেতা খান শরীফ,  রশিদ ব্যাপারি , আমজাদ জমাদার , স্বপন ব্যাপারি ও ইশরাক আহমেদ নিপুনসহ অন্যান্য নেতৃবৃন্দ।

Picture

‘প্রতিবেদনশীল ও দায়িত্বশীল নেতৃত্ব’ প্রতিপাদ্য নিয়ে ১৭ জানুয়ারি সুইজারল্যান্ডের পূর্বাঞ্চলীয় আল্পস অঞ্চলের গ্রাউবান্ডেনে পার্বত্য রিসোর্ট দাভোসে শুরু হবে ওয়ার্ল্ড ইকোনোমিক প্রোগ্রাম (ডব্লিউইএফ)-এর চার দিনের সম্মেলন। সম্মেলন উদ্বোধন করবেন চীনের প্রেসিডেন্ট শি জিনপিন। প্রতিবছরের জানুয়ারিতে দাভোসে বসে ডব্লিউইএফের এই বার্ষিক সভা।

এবার বিশ্বের প্রায় তিন হাজার শীর্ষস্থানীয় রাজনৈতিক, ব্যবসায়ী নেতা, মনোনীত বুদ্ধিজীবী ও সাংবাদিকরা বিশ্বের সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ ইস্যুগুলো নিয়ে আলোচনার জন্য একত্রিত হবেন। তাদের মধ্যে এক-তৃতীয়াংশ ইউরোপ ও উত্তর আমেরিকার বাইরে থেকে আসবেন। ব্যবসায়ী ও সরকারের বাইরে এক-তৃতীয়াংশ অংশগ্রহণকারী উদ্যোক্তাদের প্রতিনিধিত্ব করবেন।প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে সংবর্ধনা দিতে ইউরোপের বিভিন্ন দেশের নেতৃবৃন্দ ইতোমধ্যে সুইজারল্যান্ডে পৌঁছেছেন।